সিট বুকিং-এর নিয়মে বড়সড় বদল, নতুন পরিষেবা নিয়ে এলো SBSTC

দূরপাল্লার ট্রেনের মত আগাম টিকিট কেটে সিট বুক করে রাখা অর্থাৎ আসন সংরক্ষণ করে রাখার মত নয়া পরিষেবা আনলো সরকারি বাস পরিবহন সংস্থা SBSTC। বর্তমান করোনা আবহে যাত্রী পরিষেবা আরও উন্নত করতে এমন পদক্ষেপ বলে জানানো হয়েছে দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগমের তরফ থেকে।

নতুন এই পরিষেবার উদ্বোধন হল গত রবিবার। দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগমের চেয়ারম্যান কর্নেল দীপ্তাংশু চৌধুরী এই নতুন পরিষেবার উদ্বোধন করেন। এই নতুন পরিসেবায় আগাম টিকিট কেটে আসন সংরক্ষণ করার জন্য দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগমের তরফ থেকে কিয়স্ক তৈরি করা হয়েছে।

ইতিমধ্যেই এই ধরনের কিয়ক্স তৈরি হয়েছে রাজ্যের দুর্গাপুর, হলদিয়া, ডানকুনি, ডানলপ, কোলাঘাট, কাঁকসা, দার্জিলিং মোড়, লালগোলা ও আসানসোলে। আর রবিবার দুর্গাপুর থেকেই এই নতুন পরিষেবার উদ্বোধন হয়। সংস্থার তরফ থেকে জানানো হয়েছে আগামী দিনে রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় ৩৪ টি ইনফরমেশন কিয়স্ক নির্মাণ করা হবে।

এরকম এক একটি কিয়স্ক তৈরি করতে সংস্থার খরচ হবে দেড় লক্ষ টাকা। এই কিয়স্কগুলিতে টিকিট বিক্রি ছাড়াও বিভিন্ন রুট সম্পর্কিত তথ্য, বাসের সময়সূচী এবং টিকিটের দাম সহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় তথ্য সরবরাহ করা হবে। এই কিয়স্কগুলি থেকে এক মাস আগে থেকেই বাসের টিকিট এবং আসন সংরক্ষণ করে রাখা যাবে।

বর্তমানে দেশজুড়ে করোনা ভাইরাসের প্রকোপের কারণে মার্চ মাস থেকে বন্ধ রয়েছে লোকাল ট্রেন সহ অন্যান্য ট্রেন পরিষেবা। যে কারণে রাজ্যের বাসিন্দাদের এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় যাতায়াতের জন্য নির্ভর করতে হচ্ছে বাসের উপরই। আর বাসে যাতায়াতের ক্ষেত্রে ভিড় ঝুঁকি বাড়াচ্ছে সংক্রমণের।

এমত অবস্থায় দক্ষিণবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ নিগমের এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছেন সমাজের বিশিষ্টজনেরা। কারণ হিসেবে তারা উল্লেখ করেছেন, এই অবস্থা আসার ফলে যাত্রীরা আগাম টিকিট এবং আসন সংরক্ষণ করে সুরক্ষিতভাবে যাতায়াত করতে পারবেন।