কোরোনা ভাইরাসের প্রকোপ থেকে নিজের বাড়িকে সুরক্ষিত রাখুন এইভাবে

করোনার নামের মারণ ভাইরাসটির আতঙ্কে আতঙ্কিত পুরো বিশ্ব। এর জন্য মানা হচ্ছে নানারকম বিধিনিষেধ, যেমন বার বার সাবান বা অ্যালকোহল যুক্ত স্যানিটাইজার দিয়ে হাত ধুতে হবে এবং অবশ্যই পরিচ্ছন্নতা বজায় রাখতে হবে। সেক্ষেত্রে প্রথমেই নিজেদের ঘর বাড়ি কে জীবাণুমুক্ত করে পরিচ্ছন্ন রাখা টা আবশ্যক। কিভাবে ঘর বাড়িকে পরিষ্কার রাখবেন? দেখে নিন। প্রকোপ থেকে সাধারণ মানুষকে সুরক্ষিত রাখতে কি কি পন্থা অবলম্বন করতে পারেন।

১. অনেকেই ঘর মোছার ক্ষেত্রে ফিনাইল বা সেই জাতীয় জিনিস ব্যবহার করেন। এটিকেই চালিয়ে যেতে হবে, বা ডেটল ব্যবহার করতে পারেন যাতে ঘর বাড়ি জীবাণুমুক্ত থাকে। এছাড়া জলের মধ্যে একটু ব্লিচ দিয়ে ২০ মিনিট পর পরিষ্কার কাপড় দিয়ে মুছে দিলেও ঘর বাড়ি পরিষ্কার থাকে। দিনে তিন থেকে চারবার এই প্রক্রিয়ায় ঘর পরিষ্কার করতে পারেন।

২. গরম জলে থালা না ধুয়ে সেই থালায় খাবেন না। থালা ধোয়ার জন্যও বাজারে নানারকম জিনিস পাওয়া যায় সেগুলিও ব্যাবহার করতে পারেন কিন্তু যদি না হয় তাহলে অবশ্যই গরম জলে ভালোভাবে থালা ধোবেন তারপর তাতে খাবেন।

৩. বিছানা চাদর, বালিশের কভার অথবা অন্যান্য আসবাবের ঢাকনা বেশীদিন অপরিবর্তিত রাখবেন না। তিন চার দিন পর পর পরিষ্কার করবেন।

আরও পড়ুন :- বিশ্বে প্রথম করোনা ভাইরাস ছড়ানো ব্যক্তিকে অবশেষে খুঁজে পাওয়া গেল

৪. অসুস্থ ব্যাক্তির জামাকাপড় বা থালা বাসন বাকি ব্যাক্তিদের ব্যবহারের জিনিসের সাথে একসাথে রাখবেন না বা ধোবেন না। আলাদা ভাবে সেই জামাকাপড় ধোবেন এবং ডেটল বা সেই জাতীয় কিছু ধোয়ার পর ব্যাবহার করবেন।

আরও পড়ুন :- করোনা ভাইরাস দেখতে কেমন, ছবি প্রকাশ করল বিজ্ঞানীরা

৫. নিজের ঘর বাড়ি পরিষ্কার করার ক্ষেত্রেও কিন্তু প্রয়োজন নক মুখ মাথা বা হাত ঢেকে নাওয়া। ধুলো হাতে যাতে ভুল করেও নিজের চোখে মুখে হাত না দেন সেই বিষয়টি বিশেষ ভাবে খেয়াল রাখবেন।
এছাড়াও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শ নিয়মিত মেনে চলুন। অযথা বাড়ি থেকে বের হবেন না। বার বার হাত ধোবেন।