ভারতের সবথেকে ধনী র‌্যাপ সিঙ্গার, যার সম্পত্তির পরিমাণ জানলে বাদশা-রফতারও লজ্জা পাবে

Honey Singh Net Worth : বাদশা-রফতার নয়, ভারতের সবথেকে ধনী র‌্যাপ সিঙ্গারের সম্পত্তির পরিমাণ মাথা ঘুরিয়ে দেবে

India`s Richest Rapper : গান শুনতে পছন্দ করেন না এরকম খুব কম মানুষই আছেন। বর্তমানে তো গানের জনপ্রিয়তা এত বৃদ্ধি পেয়েছে যে পুরোনো গান গুলোই আবার রিমিক্স হচ্ছে। আর এক রকমের গানের চাহিদা আবার তরুণ প্রজন্মের মধ্যে খুব বৃদ্ধি পেয়েছে, সেটি হল র‌্যাপ সং। এই র‌্যাপ গেয়ে ইতিমধ্যেই জনপ্রিয়তা পেয়েছেন বাদশা (Badshah) থেকে শুরু করে রফতার (Raftaar)। কিন্তু জানেন কী কোন র‌্যাপ সিঙ্গার বলিউড (Bollywood) সবথেকে বেশি উপার্জন করেন? তার মোট সম্পত্তির পরিমাণ জানলে আপনার মাথা ঘুরে যাবে।

আপনাদের নিশ্চয় বলিউড অভিনেতা শাহরুখ খানের চেন্নাই এক্সপ্রেসের কথা মনে আছে। আর সেই ছবির লুঙ্গি ড্যান্স গানটি সেই সময় প্রচুর হিট হয়েছিল। আর এই গানটি গেয়েছিলেন ইও ইও হানি সিং (Yo Yo Honey Singh)। এই হানি সিং র‍্যাপ সংগীতের সঙ্গে ভারতীয়দের প্রথম পরিচয় ঘটান। হানির আসল নাম হিরদেশ সিংহ। ১৯৮৩ সালের ১৫ মার্চ পঞ্জাবের হোসিয়াপুরের এক শিখ পরিবারে জন্ম। পরিবারের সকলে ভালবেসে তাকে হানি বলে ডাকতেন। পরে বড় হয়ে তিনি নিজের পরিচয় বানিয়ে ফেলেন এই নাম দিয়েই।

Honey Singh Net Worth

ছোট থেকেই গানের প্রতি ভালোবাসা ছিলো হানির। তখন থেকেই বিভিন্ন গানের প্রতিযোগিতায় যোগ দিতেন। এরপর গানকে কেরিয়ার করার লক্ষ্যে ব্রিটেনের ট্রিনিটি স্কুলে সঙ্গীত নিয়ে পড়াশোনা শুরু করেন তিনি। সেখানেই নামের আগে যোগ করার জন্য ‘ইয়ো ইয়ো’ শব্দযুগল পেয়ে যান তিনি। ‘ইয়ো ইয়ো’-র অর্থ হল আপনার আপন। কলেজে বন্ধুরা এই শব্দটির ব্যবহার করতেন খুব।

এরপর পড়াশোনা শেষ করে দেশে ফিরে হানি নিজের একটি ব্যান্ড বানিয়ে ফেলেন। তার সঙ্গে ব্যান্ডের হয়ে কাজ করতেন বাদশা এবং রফতার নামে দু’জন র‌্যাপার। তাদের ব্যান্ড মূলত পঞ্জাবি গান গাইত।ক্রমে জনপ্রিয় হয়ে উঠছিলেন তারা। দিলজিৎ দোসাঞ্জ তখন ‘লায়ন অব পঞ্জাব’ নামে একটি ছবি করছিলেন। সেই ছবির একটি গান গেয়েছিলেন হানি। এরপর ২০১১ সালে হানির গানের অ্যালবাম ‘ইন্টারন্যাশনাল ভিলেজার’ মুক্তি পায়। এই অ্যালবামের প্রতিটি গান সুপারহিট হয়েছিল।

Honey Singh Net Worth

এরপর পঞ্জাবি ইন্ডাস্ট্রিতে জনপ্রিয় এই গায়ক এ বার বলিউডে ডাক পেতে শুরু করেন। বলিউডে তার প্রথম গান ‘শকল পে মত জা’ ছবির। এরপর ‘মস্তান’ ছবির গানের প্রস্তাব পান তিনি। এই ছবির একটি গানের জন্য ৭০ লাখ টাকা পারিশ্রমিক নিয়েছিলেন তিনি। এখনও পর্যন্ত বলিউডে একটি গানের জন্য এটিই সর্বোচ্চ পারিশ্রমিক। নিজের পরিশ্রম ও যোগ্যতার জোরে তিনি যে নাম ও অর্থ অর্জন তাতে করে তাকে দেশের সবচেয়ে দামি র‌্যাপার হিসেবে বিবেচনা করা হয়।

আরও পড়ুন : মঞ্চে গান গাইতে কত পারিশ্রমিক নেন বলিউড গায়করা? চমকে দেবে অরিজিত-শ্রেয়াদের পারিশ্রমিক

Honey Singh Net Worth

আরও পড়ুন : অরিজিৎ সিং হঠাৎ পাগড়ি পরা শুরু করলেন কেন, জানলে চোখে জল আসবে আপনার

এই মুহুর্তে হানি সিং প্রায় ১৮০ কোটি টাকার সম্পদের মালিক। শুধু তাই নয়, সূত্রের খবর, তিনি প্রতি বছর গড়ে ৪৫ কোটি টাকা আয় করেন। তবে আগের মত সেভাবে আর তাকে গান করতে দেখা যায় না। মাঝে দুই বছর তিনি গানের জগৎ থেকে দূরে ছিলেন। আর এই দু’বছরে অনেক কিছু বদলে গিয়েছিল। হানির চেয়ে কম পারিশ্রমিকের অনেক র‌্যাপার পেয়ে গিয়েছিল বলিউড। হানি কাজ করছেন ঠিকই কিন্তু তাকে নিয়ে আর সেই আবেগ বা উত্তেজনা নেই অনুগামীদের মধ্যে।