কেউ আধপাগল, কেউ অন্ধ, কারও আবার পা নেই! দেবচন্দ্রিমার কপালে সুস্থ নায়ক নেই কেন

দেবচন্দ্রিমার কপালে শুধুই কেন আধপাগল, অন্ধ কিংবা খোঁড়া নায়কই জোটে! প্রশ্ন দর্শকদের

Debchandrima Singha Roy Got Trolled for Her Serial Heroes

বাংলা সিরিয়ালের (Bengali Serial) নায়িকা দেবচন্দ্রিমা সিংহ রায় (Debchandrima Singha Roy) ‘সাঁঝের বাতি’র (Sanjher Baati) পর আবার ফিরছেন নতুন ধারাবাহিক নিয়ে। ‘মোহর’ অভিনেতা প্রতিক সেনের বিপরীতে ‘সাহেবের চিঠি’ (Saheber Chithi) নিয়ে টেলিভিশনের পর্দায় হাজির হচ্ছেন নায়িকা। সদ্য স্টার জলসার এই আসন্ন ধারাবাহিকের প্রোমো প্রকাশ করা হয়েছে। সেই প্রোমো নিয়ে এখন চর্চা রীতিমতো তুঙ্গে।

প্রোমোতে যেমনটা দেখানো হয়েছে, এই ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপের যুগে সাইকেল নিয়ে লোকের বাড়ি বাড়ি চিঠি পৌঁছে দেন ধারাবাহিকের নায়িকা চিঠি। অন্যদিকে নায়ক সাহেব চ্যাটার্জী একজন মস্ত বড় সুপারস্টার যাকেএক ঝলক দেখার জন্য তার বাড়ির সামনে হাজার হাজার ভক্তের ভিড় লেগে থাকে। কিন্তু কোনও এক কারণে তিনি বাড়ির বাইরে বের হতে চাইছেন না আর।

সেই সাহেব চ্যাটার্জির এক ভক্তের চিঠি নিয়ে সোজাসুজি তার বাড়িতে উপস্থিত হন নায়িকা চিঠি। সেখানে এসে তিনি জানতে পারেন সাহেব চ্যাটার্জী তার একটি পা হারিয়ে ফেলেছেন। এটা দেখার পরই সোশ্যাল মিডিয়াতে শুরু হয়েছে জোর জল্পনা। কেন দেবচন্দ্রিমার কপালে একজন সুস্থ নায়ক জোটে না সেই নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন দর্শকরা।

উল্লেখ্য, এর আগে স্টার জলসারই ‘সাঁঝের বাতি’ ধারাবাহিকে দেবচন্দ্রিমা অভিনয় করেন। সেখানে ধারাবাহিকের নায়ক আর্য ছিল অন্ধ। তার আগে দেবচন্দ্রিমার ‘টেক্কা রাজা বাদশা’ ধারাবাহিকের নায়কও ছিলেন ‘আধ পাগল’। নতুন ধারাবাহিকেও নায়ক প্রতিক সেনের একটি পা নেই। তাই নেটিজেনরা প্রশ্ন তুলছেন কেন দেবচন্দ্রিমার কপালে সব সময় এমন নায়কই জোটে? একটাও কি সুস্থ সবল নায়ক পাবেন না অভিনেত্রী?

Tekka Raja badsha

‘সাঁঝের বাতি’ ধারাবাহিকটি শেষ হয়ে যাওয়ার পর ভক্তরা ভীষণভাবে চাইছিলেন যাতে অভিনেত্রী আবার ধারাবাহিকে ফিরে আসেন। কিছুদিন টেলি ইন্ডাস্ট্রি থেকে বিরতি নিয়ে দেবের ‘কিশমিশ’ ছবিতে অভিনয় করে টলিউডেও ডেবিউ করেন অভিনেত্রী দেবচন্দ্রিমা। ‘সাহেবের চিঠি’র হাত ধরে আবার ধারাবাহিকে ফিরছেন অভিনেত্রী।