আসছে নতুন সিরিয়াল, বন্ধ হতে চলেছে স্টার জলসার এই তুমুল জনপ্রিয় ধারাবাহিক

জনপ্রিয়তা থাকা সত্ত্বেও বন্ধ হয়ে যেতে পারে স্টার জলসার এই ধারাবাহিক

স্টার জলসাতে (Star Jalsha) আসছে নীল ভট্টাচার্য (Nee Bhattacharya) এবং তিয়াসা লেপচার (Tiyasha Lepcha) নতুন সিরিয়াল বাংলা মিডিয়াম। এরই মধ্যে চ্যানেলে তরফ থেকে শেয়ার করা হয়েছে ধারাবাহিকের প্রোমো। যদিও এখনও এই সিরিয়াল কবে থেকে এবং কোন স্লটে আসছে তা জানানো হয়নি। তবে এবার জানা গেল বাংলা মিডিয়াম আসার ফলে কোন সিরিয়ালের উপর চ্যানেলের কোপ নেমে আসছে।

স্বাভাবিক নিয়মেই নতুন ধারাবাহিক আসার ফলে পুরনো কোনও এক ধারাবাহিক মাঝপথেই বন্ধ করে দিতে হয়। তবে এই মুহূর্তে যা দেখা যাচ্ছে তাতে স্টার জলসার কোনও ধারাবাহিকই বন্ধ হওয়ার মত নয়। তবে শুধু বাংলা মিডিয়াম একা নয়, শোনা যাচ্ছে সুস্মিতা দে এবং রাজদীপ গুপ্তকে নিয়ে আরও এক নতুন ধারাবাহিক আসছে যার নাম ‘নাগপঞ্চমী’। কাজেই একটা নয়, পরপর দুটি ধারাবাহিক খুব শীঘ্রই বন্ধ হতে পারে বলে জানা যাচ্ছে।

তবে আপাতত যে খবর পাওয়া যাচ্ছে তাতে ‘গোধূলি আলাপ’ ধারাবাহিকের উপর চ্যানেলের খাড়া ঝুলছে বলেই মনে হয়। খুব শীঘ্রই স্টার জলসাতে অরিন্দম এবং নোলকের যাত্রা শেষ হয়ে যাবে। রাজ চক্রবর্তীর প্রোডাকশন হাউসের আওতায় কৌশিক সেন এবং নবাগতা অভিনেত্রী সোমু সরকারকে নিয়ে অসমবয়সী এক প্রেমের গল্প তুলে ধরা হয়েছিল টেলিভিশনের পর্দাতে। এবার সেই যাত্রা বন্ধ হওয়ার মুখে।

শুরু থেকেই এই ধারাবাহিকের জনপ্রিয়তা বেশ ছিল কিন্তু ছিল না টিআরপি। স্টার জলসা প্রথমে ধারাবাহিকটিকে সন্ধ্যে ৬.০০ টার সময় সম্প্রচার করেছিল। কিন্তু কয়েক মাস পর টিআরপির অভাবে এবং নতুন ধারাবাহিক নবাব নন্দিনীকে জায়গা দিতে গোধূলি আলাপকে সরানো হয় রাতের দিকে। এই সিরিয়ালের ভক্তরা এতদিন রাতের স্লটেই সিরিয়ালটি দেখেছেন। কিন্তু এবার নাকি বন্ধই হয়ে যাবে সিরিয়ালটি।

Star Jalsha Godhuli Alap Update Arindam Rai Arrested for Marrying Nolok

যদিও ইন্ডাস্ট্রিতে কানাঘুষোতে এও শোনা যাচ্ছে যে শেষমেষ হয়ত রাজ চক্রবর্তীর এই সিরিয়ালটি বন্ধ নাও হতে পারে। বদলে হয়ত ধারাবাহিকের স্লট পরিবর্তন করে দেওয়া হবে। কারণ দর্শকদের একাংশের মাঝে ধারাবাহিকটি বেশ জনপ্রিয়। এমনকি এমনটাও জানা গিয়েছিল যে টিভিতে না দেখলেও হটস্টারে নাকি এই ধারাবাহিকে প্রচুর দর্শক রয়েছেন।

কাজেই দর্শকদের চাহিদার কথা বিবেচনা করে চ্যানেল সিদ্ধান্ত বদলালেও বদলাতে পারে। কিন্তু রাতের স্লট থেকে সরিয়ে হয়তো আরও কোনও খারাপ স্লটে নিয়ে যাওয়া হবে এই সিরিয়ালকে। সেটা হতে পারে সকাল কিংবা দুপুর, যখন টিভিতে দর্শক প্রায় থাকে না বললেই চলে। এত জনপ্রিয় একটি ধারাবাহিকের ভবিষ্যৎ কী হতে চলেছে সেটাই এখন দেখার।