শেষ জীবনটা ছিল অত্যন্ত বেদনাদায়ক, মৃত্যুতেই শান্তি পেলেন নির্মলা মিশ্র

Riya Chatterjee

Published on:

প্রয়াত হলেন বাংলার কিংবদন্তি গায়িকা নির্মলা মিশ্র (Nirmala Mishra)। শনিবার রাতে চেতলায় নিজের বাড়িতেই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন তিনি। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৪ বছর। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েই প্রয়াত হয়েছেন গায়িকা। তবে তার আগে চরম শারীরিক কষ্টের মধ্য দিয়ে কেটেছে তার দিন। শেষের জীবনটায় অনেক কষ্ট পেয়ে গেলেন বাংলার এই প্রখ্যাত গায়িকা।

নির্মলা মিশ্র তার কেরিয়ার জীবনে অনেক জনপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন তার ভক্তদের। যার মধ্যে ‘ও তোতা পাখি রে’, ‘এমন একটা ঝিনুক খুঁজে পেলাম না’ ইত্যাদি আরও অনেক গান কেবল নির্মলা মিশ্রের গান হয়েই আজীবন থেকে যাবে শ্রোতাদের মনের মধ্যে। নির্মলা মিশ্র প্রয়াত হলেও তার কালজয়ী গানগুলো আজীবন থেকে যাবে।

এমন একজন কিংবদন্তি শিল্পীর শেষ জীবনটা বড়ই কষ্টের ছিল। তার স্নেহধন্যা আরেক কিংবদন্তি গায়িকা হৈমন্তী শুক্লা জানিয়েছেন দীর্ঘদিন ধরেই বার্ধক্যজনিত সমস্যায় ভুগছিলেন নির্মলা মিশ্র। শেষ বয়সটা অনেক কষ্টের মধ্য দিয়েই কাটলো তার। মৃত্যু তাকে শান্তি এনে দিয়েছে।

এর আগেও বহুবার অসুস্থতার কারণে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়েছিল তাকে। শেষের দিকটাই আর হাসপাতালে থাকতে চাইতেন না তিনি। তাই বাড়িতে রেখেই তার চিকিৎসা চলছিল। হৈমন্তী শুক্লা সংবাদমাধ্যমকে বলেছেন কারও চলে যাওয়াটা বেদনার। তবে হৈমন্তী শুক্লা এতটাই কষ্ট পাচ্ছিলেন যে তার আপনজনেরাও চাইছিলেন মৃত্যু তাকে শান্তি দিক।

গত ৪ বছরে ১০-১৫ বার তাকে হাসপাতালে ভর্তি হতে হয়েছিল। স্ট্রোকও হয়েছিল তার। বারবার মৃত্যুকে হারিয়ে বাড়ি ফিরে এসেছিলেন গায়িকা। শনিবার রাতে তার শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। সেই সময় তার চিকিৎসক বাড়িতেই চিকিৎসা শুরু করেন। তবুও শেষরক্ষা হল না।

শনিবার রাতটা সাদার্ন এভিনিউয়ের একটি নার্সিংহোমেই ছিল নির্মলা মিশ্রের মরদেহ। রবিবার সকালে তার পার্থিব শরীর নিয়ে যাওয়া হয় রবীন্দ্রসদনে। সেখানে প্রিয় সংগীত শিল্পীকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে এসেছিলেন তার ভক্তরা।