এক বিয়েতে সাধ মেটেনি, বাস্তবেও একাধিক বিয়ে! কটাক্ষের কড়া জবাব ‘শিমুল’ মানালির

বাস্তবেও বারবার ভেঙেছে বিয়ে, ডিভোর্স নিয়ে খোঁচা! কটাক্ষের কড়া জবাব দিলেন মানালি

Riya Chatterjee

Published on:

Manali Dey Husband : বাংলা সিরিয়ালের জনপ্রিয় অভিনেত্রী মানালি দে (Manali Dey)। তার অভিনীত সিরিয়াল মানেই তা হিট। স্টার জলসা (Star Jalsha) এবং জি বাংলা (Zee Bangla) মিলিয়ে মিশিয়ে একাধিক সিরিয়ালে অভিনয় করেছেন তিনি। সেই ‘বউ কথা কও’ থেকে শুরু করে আজ এত বছর পেরিয়েও মানালির সমান জনপ্রিয়তা রয়ে গিয়েছে। বর্তমানে জি বাংলার ‘কার কাছে কই মনের কথা’ (Kar Kache Koi Moner kotha) সিরিয়ালের জন্য তিনি বেশ চর্চায় রয়েছেন।

বাংলা সিরিয়ালের ইতিহাসে এতদিন শাশুড়ি-বৌমার ঝগড়াঝাঁটি, কুটকাচালি দেখে এসেছেন দর্শকরা। এই সিরিয়ালে স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্কে তিক্ততা, বৈবাহিক ধর্ষণের বিষয়গুলো উঠে আসছে। শিমুল ওরফে মানালির চরিত্রটি এখানে বেশ প্রতিবাদী এবং সাহসী। শিমুলের মত মানালিরও প্রথম বিয়েটা ঠিক সুখের ছিল না। এক নয়, মানালির আসলে দুই বিয়ে।

MANALI DEY HUSBAND

২০১২ সালে মানালি দে প্রখ্যাত সঙ্গীতশিল্পী সপ্তক মুখার্জীকে বিয়ে করেছিলেন। ভালোবেসে বিয়ে করলেও মাত্র কয়েক বছরের মাথাতেই তাদের সম্পর্কটা ভেঙ্গে যায়। ২০১৬ সালে তাদের ডিভোর্স হয়ে যায়। এরপর ২০২০ সালের ১৫ ই আগস্ট পরিচালক অভিমন্যু মুখার্জীকে বিয়ে করেন তিনি। অভিমন্যুরও অবশ্য এটা ছিল দ্বিতীয় বিয়ে। এর আগে তিনি বিয়ে করেছিলেন অভিনেত্রী অনিন্দিতা বসুকে।

প্রথম বিয়েটা সুখের না হলেও দ্বিতীয় বিয়েতে বেশ সুখী মানালি। কিন্তু প্রথম বিয়ে ভেঙ্গে যাওয়া নিয়ে আজও সোশ্যাল মিডিয়াতে তাকে কটাক্ষের শিকার হতে হয়। এই প্রসঙ্গে অভিনেত্রী সংবাদ মাধ্যমের কাছে বলেছেন, “আমি হয়তো একটা ব্যক্তিগত পোস্ট করলাম। সেটার নিচে একজন লিখলো ‘আপনি ভালো আছেন আগেও তো একটা কাটিয়ে এসেছেন’। সেই জায়গায় আমার মনে হয় আপনি আমার জায়গায় ছিলেন না। আমি কি কাটিয়ে এসেছি আপনি জানেন না।”

Manali Dey Husband

মানালি আরও বলেছেন, “আমি কবে কেঁদেছি, কবে ভালো থেকেছি সেটা কেউ জানে না আমার পরিবার ছাড়া। আমি যখন খারাপ থেকেছি, তখন আপনারা আমার পাশে ছিলেন না। খারাপ থাকাটা কেউ দেখতে পায় না, তাই মন্তব্য করাটা খুব সহজ।’’ মানালি বলেছেন ট্রোলারদের জবাব দিতে তার আসলে রুচিতে বাঁধে।

MANALI DEY

আরও পড়ুন : আসছে ‘গোয়েন্দা গিন্নি সিজন ২’? ‘শ্রীময়ী’র পর আবার পর্দায় ফিরছেন ইন্দ্রানী হালদার

অভিনেত্রীর কথায়, “প্রত্যেক মানুষের ভালো থাকার অধিকার রয়েছে। তাই কখনও কাউকে ছোট করবেন না। আমরা তো মধ্যবিত্ত মানসিকতা নিয়েই বড় হয়েছি। আমরা ভাঙতে নয়, গড়তেই শিখেছি। কিন্তু দুটো ভালো মানুষও সবসময় এক থাকতে পারবে সেটা হয় না। কিন্তু সেটা নিয়ে বাইরে থেকে তাঁদের কেন মানুষ জাজ করে সেটা আমি আজও বুঝতে পারি না”।

আরও পড়ুন : শৈশবে মা-হারা, মাধ্যমিক দিয়ে ফিরে বাবার সৎকার! পল্লবীর জীবনের কঠিন লড়াই যেন সিনেমা