হাতে টাকা এলেই লোক দেখানো খরচ, তারপর ডিপ্রেশন, পরিণামে মৃত্যু : দেবাংশু ভট্টাচার্য

DEBANGSHU BHATTACHERJEE TLAKS ABOUT SUICIDE

মাত্র দুই সপ্তাহের ব্যবধান, আর এই কম সময়ের মধ্যেই বাংলা টেলিভিশন (Bengali Telivision) ইন্ডাস্ট্রি থেকে তিনজন মডেল এবং অভিনেত্রীর আত্মহত্যার খবর এসেছে প্রকাশ্যে। তারপর থেকেই বিষয় নিয়ে চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ। ব্যক্তিগত জীবন এবং কেরিয়ারে মানসিক অবসাদগ্রস্ত হয়েই নাকি এমন কাণ্ড ঘটিয়ে ফেলেছেন অভিনেত্রীরা! ২০-২৫ বছর বয়সী এই অভিনেত্রীদের প্রয়াণ নাড়িয়ে দিয়ে গিয়েছে ইন্ডাস্ট্রিকে।

কেরিয়ারের শুরুর মুহূর্তে ধাক্কা খেয়ে কিংবা ব্যক্তিগত জীবনে কঠিন পরিস্থিতির সম্মুখীন হয়ে ঘুরে দাঁড়িয়ে লড়াই না করে নিজেদের শেষ করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন তারকারা। এই বিষয় নিয়ে এবার মুখ খুললেন তৃণমূলের যুব নেতা দেবাংশু ভট্টাচার্য (Debangshu Bhattacharya)। তিনি এর কারণ হিসেবে বর্তমান লাইফস্টাইলকেই দায়ী করেছেন তার ফেসবুক পোস্টে।

নেটিজেনদের একাংশের বক্তব্য, কম বয়সেই হাতে অতিরিক্ত টাকা পয়সার এসে যাওয়ার কারণেই এতটা অধঃপতনের দিকে এগোচ্ছে এই প্রজন্ম। দেবাংশুও কিছুটা তাই মনে করেন। তাই সকলের প্রতি তার আবেদন, টাকাপয়সাটাই জীবনের সব নয়। আড়ম্বরপূর্ণ লোক দেখানো জীবনযাপন ছেড়ে সহজ সরল জীবনযাপনে অভ্যস্ত হতে হবে।

দেবাংশু তার পোস্টে সকলের প্রতি আবেদন রেখেছেন, “লাইফস্টাইল একটু সহজ সরল রাখুন। নিজেদের আশপাশ অতিরিক্ত আড়ম্বরে মুড়ে ফেলবেন না। হাতে টাকা এলেই লোক দেখিয়ে খরচা করে নিজেকে কেউকেটা দেখাতে যাবেন না।” তিনি মনে করেন, “জীবনযাত্রার মান ভীষণ ভাবে উপরে উঠিয়ে দেওয়ার পর যখন আর্থিক সংকটে তাকে মেনটেইন করা অসম্ভব হয়ে পড়ে, তখন সর্বনাশা ডিপ্রেসন চেপে ধরতে বাধ্য। যার পরিণাম শেষ কয়েক সপ্তাহের সংবাদমাধ্যমের শিরোনাম!”

COMMENT

বাবা-মায়েদের প্রতি তার আবেদন ছেলেমেয়েদের একটু জল, কাদা, বৃষ্টি মেখে বড় হতে দিতে হবে। একা একা নয়, ছেলেমেয়েদের সকলের সঙ্গে মিলেমিশে বেড়ে ওঠার শিক্ষা দিতে হবে। সকলের সঙ্গে মিশে বড় হলে তবেই জীবন সম্পর্কে সঠিক ধারণা গঠন হয়। এমনটাই মনে করেন দেবাংশু।