অবশেষে আসল মিঠাই ফিরে এল, হয়ে গেল শুটিং, ফের দুর্দান্ত টুইস্ট এনে চমকে দিল মিঠাই

আসল মিঠাইয়ের আগমনে নকল মিঠি বিদায় নেবে এবার! গল্পে এল দুর্দান্ত মোড়

Soumitrisha Kundu started shooting again as Mithai

জি বাংলার (Zee Bangla) মিঠাই (Mithai) ধারাবাহিকে এবং সত্যি সত্যিই একটা দুর্দান্ত মোড় আসতে চলেছে। আর খুব বেশি দেরি নয়, মিঠাই এবার খুব তাড়াতাড়িই গল্পে প্রবেশ করবে। বর্তমানে শাক্যের স্কুলের বার্ষিক অনুষ্ঠান উপলক্ষে দর্শকরা খুবই চিন্তিত রয়েছেন। কারণ এই অনুষ্ঠানে যদি শাক্য ভালভাবে নাচতে না পারে তাহলে তাকে স্কুল থেকে বের করে দেওয়া হবে। এরপর তার ঠাঁই হবে বোর্ডিং স্কুলে।

ছেলেকে নিয়ে উচ্ছেবাবু রীতিমত হতাশ। যদিও মাত্র এক রাতের মধ্যে মিঠির কাছে নামতা শিখে নিয়ে স্কুলের পরীক্ষায় ম্যামদের এবং নিজের বাবাকেও তাক লাগিয়ে দিয়েছে শাক্যবাবু। তবে তার সামনে এখন নতুন চ্যালেঞ্জ। এদিকে আবার সৌমীও কারসাজি করে ব্যাগ থেকে শাক্যর কস্টিউম বের করে লুকিয়ে রেখেছে যাতে কস্টিউম ছাড়া সে অনুষ্ঠানে অংশ নিতে না পারে। মিঠি শেষ মুহূর্তে শাক্যর জন্য কী করবে সেটাই এখন দেখার।

এদিকে আবার কস্টিউম ছাড়া অনুষ্ঠানে অংশ নিতে দেওয়ার অনুরোধ করলে স্কুলের শিক্ষিকারা মিঠিকে জানায় যে এখন কেবল একমাত্র উপায় হল বাবা-মায়ের সঙ্গে অনুষ্ঠানে অংশ নেওয়া। অর্থাৎ এই অনুষ্ঠানে অংশ নিতে গেলে শাক্যকে এখন তার বাবা সিদ্ধার্থ অথবা মা মিঠাইয়ের সঙ্গে অংশ নিতে হবে। শাক্যর না মিঠাই এখন নেই। সেই জায়গায় কি তাহলে মিঠি মিঠাই সাজবে?

এরই মধ্যে সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়েছে বিহাইন্ড দ্য সিন একটা ছবি যা দেখে জল্পনা বাড়ছে। ছবিতে দেখা যাচ্ছে মিঠাই ওরফে সৌমিতৃষা কুন্ডু, সিদ্ধার্থ ওরফে আদৃত রায় এবং শাক্যবাবুকে। বিহাইন্ড দ্য সিন তারা বেশ খুনসুটি করে। পর্দাতে শাক্য সিদ্ধার্থের কাছে অবিরাম বকা খেলেও বাস্তবে কিন্তু দুজনের মধ্যে দারুণ ভাল সম্পর্ক। আবার মিঠাই ওরফে সৌমিতৃষার সঙ্গেও শাক্য ওরফে ধৃতিষ্মানের বেশ ভাল সম্পর্ক রয়েছে।

যে ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়েছে সেখানে সৌমিতৃষাকে মিঠির রূপে নয়, মিঠাইয়ের রূপে দেখা যাচ্ছে। মিঠাই মারা যাওয়ার দৃশ্যের শুটিং করার আগে সোশ্যাল মিডিয়াতে সৌমিতৃষা তার শেষ দিনের শটের একটি ছবি শেয়ার করেছিলেন। যার ফলে অনেক জল্পনা শুরু হয়েছিল দর্শকদের মধ্যে। অনেকে ধরেই নিয়েছিলেন মিঠাই হয়ত আর ফিরবে না। যদিও পরে অবশ্য নায়িকা নিজের মুখে স্বীকার করেছিলেন গল্পের নাম যেহেতু মিঠাই তাই মিঠাই মরতে পারে না।

অর্থাৎ মনোহরাতে এবার খুব তাড়াতাড়িই মিঠাইকে দেখতে চলেছি আমরা। তবে যতদূর অনুমান করা হচ্ছে শাক্যের স্কুলের বার্ষিক অনুষ্ঠানকে কেন্দ্র করেই সৌমিতৃষা মিঠাইয়ের লুকে ফিরবেন। আবার এও অনুমান করা হচ্ছে মিঠিই শাক্যের মনের জোর বাড়াতে মিঠাইয়ের মত সাজবে। গল্পে যাই ঘটুক না কেন মিঠাই তাড়াতাড়ি আবার ফিরে আসুক, এমনটাই কিন্তু চাইছেন ভক্তরা।