ধূলোকণার অন্তিম পর্বে লালন-ফুলঝুরির মিল কীভাবে হবে? ভিডিও শেয়ার করে জানালো স্টার জলসা

ধুলোকণার অন্তিম পর্ব আসন্ন, লালন-ফুলঝুরির রোমান্টিক ভিডিও জিতে নিল দর্শকদের মন

Lalon And Phuljhuri From Dhulokona Romantic Video Goes Viral On Internet

বর্তমানে বাংলা সিরিয়ালের দর্শকদের মন খুবই খারাপ। এই বছরটায় একাধিক জনপ্রিয় সিরিয়াল বন্ধ হয়ে গিয়েছে আচমকা। স্টার জলসা (Star Jalsha) এবং জি বাংলা বহু ধারাবাহিককে টিআরপির অভাবে বন্ধ করে দিয়েছে। কিছু কিছু ধারাবাহিক আবার ভাল টিআরপি থাকা সত্ত্বেও মাঝপথে বন্ধ করে দেওয়া হল। খুকুমণি হোম ডেলিভারির পর এমনই দুর্ভাগ্যের শিকার হতে হল ধুলোকণাকে (Dhulokona)।

অথচ দর্শকরা মনে করছেন এখনও এই ধারাবাহিকে অনেক কিছু দেখানোর বাকি রয়েছে। এই তো সবেমাত্র প্রেগন্যান্ট হয়েছিল ফুলঝুরি। ধারাবাহিকে অঙ্কুরের প্রবেশ ঘটেছিল। গল্প এখন নতুনভাবে দারুণ মোড় নিতে পারত। বেইমান লালনকে উচিত শিক্ষা দিতে পারত ফুলঝুরি। তবে সেসব কিছু হওয়ার আগেই সবকিছু শেষ হয়ে গেল মাঝপথে। দর্শকরা চান এখন যে করেই হোক ধারাবাহিকের শেষে যেন অন্তত লালন-ফুলঝুরির মিল দেখানো হয়।

আগামী ১২ ই ডিসেম্বর থেকে ধূলোকণার জায়গায় সম্প্রচারিত হবে বাংলা মিডিয়াম। অর্থাৎ ১১ ই ডিসেম্বর ধূলোকণার শেষ সম্প্রচার হবে। শোনা যাচ্ছে গল্পের শেষে নাকি ফুলঝুরির মৃত্যু হবে। সে আসলে প্রেগনেন্ট নয়, তার পেটে টিউমার হয়েছে। এভাবেই আরও একটি ধারাবাহিক ট্র্যাজেডির মাধ্যমে শেষ করতে চলেছেন লীনা গাঙ্গুলী। তাই মন খুবই খারাপ দর্শকদের।

ধূলোকণা সিরিয়ালটি এই মুহূর্তে স্টার জলসার অন্যতম জনপ্রিয় সিরিয়াল। বেশ কয়েকবার বেঙ্গল টপার হয়েছে সিরিয়ালটি। গত সপ্তাহ পর্যন্ত এর টিআরপি রেটিং অন্যান্য ধারাবাহিকের তুলনায় বেশি ছিল। তবুও কোনও কারণ না জানিয়ে শেষ করে দেওয়া হচ্ছে ধূলোকণা। ধারাবাহিকটিকে নিয়ে যখন দর্শকদের মন খুবই ভারাক্রান্ত তখন চ্যানেলের তরফ থেকে এল একটি মন ভাল করে দেওয়ার মত ভিডিও।

জীবন সংগ্রামে নিত্যদিন যুঝতে থাকা দুই বস্তিবাসী ছেলে-মেয়ের গল্প নিয়ে শুরু হয়েছিল এই সিরিয়ালটি। তারা একে অপরের প্রেমে পড়েছিল। তবে পরিস্থিতির চাপে পড়ে বারবার তাদের বিচ্ছেদ হয়েছে। এত কিছুর পরেও তাদের মধ্যে অমলিন থেকেছে ভালবাসা। সব বাধা অতিক্রম করে লালন-ফুলঝুরি আবার একসঙ্গে নিজেদের স্বপ্ন পূরণের লক্ষ্যে এগিয়েছে। সিরিয়ালের অন্তিম লগ্নে এসে সবকিছু কেমন যেন ওলট-পালট হয়ে গিয়েছে।

লালন-ফুলঝুরি-তিতিরের ত্রিকোণ প্রেমের সম্পর্কটা একদম ভাল লাগছে না দর্শকদের। তারা অন্তিম লগ্নে লাল-ফুলের মিল দেখতে চান। লীনা গাঙ্গুলী তার লেখনীতে গল্পের শেষটা কীভাবে লিখেছেন জানা নেই, তবে সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়েছে লালন-ফুলঝুরির রোমান্টিক দৃশ্যগুলিকে নিয়ে সাজানো একটি ভিডিও। এই ভিডিও দেখে অনেকেই দাবি করছেন যেন দর্শকদের জন্য ভাল স্মৃতি রেখেই বিদায় নেয় ধূলোকণা।