ভরা যৌবনেই ‘টাকলু’, করিশ্মার সঙ্গে ভেঙে যায় বিয়ে, কোথায় হারিয়ে গেলেন অক্ষয় খান্না?

Riya Chatterjee

Published on:

বলিউডের (Bollywood) স্টার কিডদের মধ্যে সকলেই যে অভিনয়ের দুনিয়াতে অযোগ্য এমনটা কিন্তু নয়। ৭০-৮০ এর দশকের বলিউড সুপারস্টার বিনোদ খান্নাকে (Vinod Khanna) সকলেই চেনেন। তার ছেলে অক্ষয় খান্না (Akshay Khanna) ১৯৯৯ সালে ‘হিমালয় পুত্র’ ছবি দিয়ে ডেবিউ করেছিলেন ইন্ডাস্ট্রিতে। এরপর ২০০১ সালে ‘দিল চাহতা হে’ ছবি সুপার হিট হওয়ার পর তাকে বেশ পছন্দ করছিলেন দর্শকরা।

অক্ষয় খান্না এরপর আরও অনেক ছবিতে অভিনয় করেন। নায়ক হওয়ার পাশাপাশি খলনায়ক হিসেবেও তার অভিনয় দর্শকদের মনের মধ্যে দাগ কাটে। তা সত্ত্বেও ইন্ডাস্ট্রিতে সেভাবে নিজেকে ধরে রাখতে পারেননি এই অভিনেতা। ঢিসুম , হাঙ্গামার মত সুপারহিট সিনেমাতে অভিনয় করেও কোথায় যেন হারিয়ে গেলেন বিনোদ খান্না।

AKSHAY KHANNA AND KARISHMA KAPOOR

এই অভিনেতা বরাবর নিজের ব্যক্তিগত জীবনকে লাইমলাইট থেকে দূরে রেখেছেন। যদিও তার সম্পর্কে কিছু খবর বলিউডের আনাচে-কানাচে ঘোরে। ৪৮ বছর বয়সী এই অভিনেতা জীবনে বেশ কয়েকবার প্রেমে পড়েছিলেন। বেশ কিছু বলিউড অভিনেত্রীর সঙ্গে জড়িয়েছিল তার নাম। এদের মধ্যে করিশ্মা কাপুরকে তিনি বিয়ে করতে চান।

করিশ্মাকে বিয়ে করার প্রস্তাব নিয়ে তার বাবা-মার কাছে সটান হাজির হয়েছিলেন অক্ষয়। কিন্তু সেই সময় করিশ্মার কেরিয়ার ছিল মধ্য গগনে। তাই অক্ষয়কে জামাই হিসেবে মেনে নিতে চাননি করিশ্মার মা ববিতা। এরপর সারা জীবনে আর বিয়ে না করার সিদ্ধান্ত নেন অক্ষয় খান্না। বিয়ে নিয়ে বরাবরই তার বেশ আপত্তি ছিল।

AKSHAY KHANNA

অক্ষয় খান্নার এরপর অভিনয়টাই বেশ মন দিয়ে করছিলেন। কিন্তু হঠাৎ করে অল্প বয়সে তার মাথার চুল উঠে যাওয়ার সমস্যা দেখা দেয়। এই প্রসঙ্গে অভিনেতা একটি সংবাদ মাধ্যমের কাছে বলেন, “খুব অল্প বয়সে আমার সঙ্গে এটা শুরু হয়েছিল। একজন পিয়ানো বাদকের কাছে তার আঙ্গুল চলে যাওয়ার মত বিষয় ছিল এটি। আমার এমনই অনুভূতি হত। যতক্ষণ না মেনে নিতে পারছো সেই সময়টা খারাপ লাগে।”

AKSHAY KHANNA

একজন অল্প বয়সী অভিনেতার কাছে এটা আত্মবিশ্বাসের উপর প্রভাব ফেলে বলে মন্তব্য করেন অক্ষয় খান্না। কিন্তু তিনি থেমে যাননি। অন্যদিকে বিয়ে না করা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “আমি বাচ্চাদের পছন্দ করি না। তাই আজও বুঝি আমি বিয়ে করিনি এবং আমি কখনোই বিয়ে করতে চাই না। আমি একা ভাল। আমি কিছু সময়ের জন্য একটি সম্পর্কে থাকতে পারি তবে সেই সম্পর্কটি দীর্ঘদিন চালাতে পারি না।”