AC এর তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণ করবেন মোদী, কিন্ত কিভাবে ?

দিনভর ভ্যাপসা গরমে শরীরের বারোটা না বাজানোর জন্য আপনি গাঁটের টাকা খরচ করে কিনে আনেন AC বা শীততাপ নিয়ন্ত্রক যন্ত্র। ভাবনা এমন যে একবার AC রুমে ঢুকে গেলে তাপমাত্রা ২১ ডিগ্রি এর মধ্যে রেখে বেশ গরমকে দূরে হটিয়ে শীতল আমেজ নেওয়া। আর রাত্রে বা দুপুরে বিছানায় আলিসে ঘুমিয়ে পড়ো চাদর বা অন্য কিছু ঢাকা নিয়ে। কিন্তু আপনার এই সুখে থাকার অবস্থাতেও নাকি এবার নজর গলাচ্ছে কেন্দ্র সরকার।

কেন্দ্রীয় শক্তি মন্ত্রী বা বিদ্যুৎ মন্ত্রী  আর কে সিং এর কাছে প্রস্তাব এসেছে যে এবার থেকে শীততাপ নিয়ন্ত্রক যন্ত্রে ডিফল্ট তাপমাত্রা ২৪ডিগ্রি সেলসিয়াস যেন রাখা হয়। আর এই প্রস্তাবের কথা যখন মন্ত্রী মহাশয় সোশ্যাল নেটওর্য়াকিং সাইট টুইটারে জানান, তখন থেকেই  এইরকম কথা ভেসে আসছে তার দিকে নানান মহল থেকে। কিন্তু ঘটনার সত্যতা জানার জন্য আমরা যখন একটু অনুসন্ধান করি তখন জানতে পারি যে আসল ঘটনাটি কি।

কেন্দ্রীয় বিদ্যুৎ মন্ত্রী  আর কে সিং জানান যে আমাদের মতো এত বিশাল জনসংখ্যার দেশে যেখানে সবাই এখনও বিদ্যুতের ছোঁয়া পায় নি সেখানে আমরা চাইছি আগামী ২০২০ সালের মধ্যে ভারতের সকল বাড়িতেই যেন বিদ্যুতের ব্যবস্থা সরকার করতে পরি। আর তাই আমরা বিদ্যুৎ সংরক্ষণের উপর জোর দিচ্ছি। আর যেহেতু গ্রীষ্মকালে বিদ্যুতের চাহিদা স্বাভাবিক ভাবেই বেড়ে যায় তাই আমরা চাই শহরাঞ্চল বা  যেখানে শীততাপ যন্ত্র বা AC ব্যবহার করা হয় সেখানে AC এর ডিফল্ট তাপমাত্রা যেন ২৪ডিগ্রি সেলসিয়াস রাখা হয়।


এভাবে যেমন একদিকে অনেক বেশি বিদ্যুৎ সংরক্ষণ করা যাবে, তেমনি সেই বিদ্যুৎ গরিবের ঘরে আলো দিতে সাহায্য করবে এবং সরকারের অর্থ সাশ্রয় করবে।তার মতে এই ভাবে যদি আমরা শীততাপ নিয়ন্ত্রক যন্ত্রের তাপমাত্রা ১ ডিগ্রি করে  বাড়াতে পারি  তাহলে শীততাপ নিয়ন্ত্রক যন্ত্রের প্রয়োজনীয় বিদ্যুতের ৬% সাশ্রয় করা যায়।

আরও পড়ুন : মোদীর মন্ত্রে পকোড়া বেচে লাখপতি ভাদোদরার যুবক

তিনি আরও বলেন যে একজন স্বাভাবিক সুস্থ ব্যক্তির শরীরের স্বাভাবিক তাপমাত্রা ৩৬-৩৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস।কিন্তু আমরা সবাই যারা শীততাপ নিয়ন্ত্রক যন্ত্র ব্যবহার করি যা বড় অফিস,বা হোটেল বা নিজের বাড়িতে সেখানে আমরা AC এর তাপমাত্রা কমিয়ে রাখি ১৮-২১ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।


যা একদমই আমাদের স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী নয়।আর এইভাবে আমরা বিদ্যুতের সংরক্ষণ না করে তার অপচয় করছি।সাধারণত আমরা তাপমাত্রা কমিয়ে চাদর বা অন্য কিছু ঢাকা নিয়ে ঘুমাতে পছন্দ করি কিন্তু তবুও AC এর তাপমাত্রা বাড়িয়ে দিয়ে থাকি না।

তার মতে আমরা যদি AC এর ডিফল্ট তাপমাত্রা ২৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রাখতে পারি তাহলে আমরা যেমন পূর্বের বিদ্যুতের খরচের তুলনায় ২৪% সাশ্রয় করতে পারবো তেমনি আমাদের বায়ু দূষণের হার কমাতেও পারবো। আর এইভাবে প্রতি বছর আমরা ২০০০ কোটি ইউনিট বিদ্যুৎ বাঁচাতে পারবো যা ১৭.২০ লক্ষ টন খনিজ তেলের দামের সমান। আর এইভাবে যেমন সরকারের অর্থের সাশ্রয় হবে তেমনি গ্রিন হাউস গ্যাস নিঃসরণ বাতাসে কম হবে। আর তাছাড়া আমরা যে কূঅভ্যাস রপ্ত করে চলেছি তার থেকেও আমাদের মুক্তি ঘটবে।

আরও পড়ুন : গরমে মাথা ঠান্ডা রাখার জন্য এবার বাজারে “এসি হেলমেট”

তবে অনেকেই যে মনে করছেন যে AC এর তাপমাত্রা ২৪ডিগ্রি সেলসিয়াসের নীচে কমানো যাবে না এবার থেকে তা যে সম্পূর্ন ভ্রান্তি মূলক তা তিনি ব্যাখ্যা করে তুলে ধরেছেন। তিনি জানান যে AC এর ডিফল্ট তাপমাত্রা ২৪ ডিগ্রি করার মানে যে এই নয় যে AC এর তাপমাত্রা ২৪ ডিগ্রির নিচে নিয়ে যাওয়া যাবে না। এটা করা হলে AC অন হলে প্রথমে তাপমাত্রা ২৪ ডিগ্রি থাকবে। পরে যদি আপনি চান তো পছন্দমতো নীচে নামাতে পারেন।

যদিও এই পুরো প্রক্রিয়াটি এখনও প্রস্তাব আকারে সরকারের কাছে জমা পড়েছে। সাধারণ মানুষের সচেতনতার উপর ভিত্তি করে তা শক্তি মন্ত্রক লাগু করবে কী না তা জানানো হবে।