সৌন্দর্যের সংজ্ঞা বদলে দেওয়া ‘ওগো নিরুপমা’ বাস্তবে কে, রইলো তার আসল পরিচয়

“রূপে তোমায় ভোলাবো না, ভালোবাসায় ভোলাবো”! এই মর্মেই স্টার জলসা চ্যানেলের বিকেলের স্লটে শুরু হয়েছিল ধারাবাহিক “ওগো নিরুপমা”। যে ধারাবাহিকের একদিকের পাল্লায় রয়েছে একটি মেয়ের রুপহীনতা, অপরদিকের পাল্লায় রয়েছে সেই রূপহীন মেয়েরই অটুট আত্মবিশ্বাস। ধারাবাহিকের নির্মাতারা কিন্তু এই ধারাবাহিক মারফত সমাজে একটি বিশেষ বার্তা দিতে চেয়েছেন।

সমাজের প্রচলিত ধ্যান-ধারণা অনুযায়ী সুন্দর মুখেরই নাকি সর্বত্র জয় হয়! কিন্তু সত্যিই কি তাই? রুপের কাছে কি গুন হেরে যাবে? একটি মেয়ের জীবনের সফলতা-ব্যর্থতা কি শুধুই তার রূপ দিয়েই বিচার হবে? কালো, কুৎসিত, দাঁত উঁচু “নিরুপমা” কিন্তু সমাজের কাছে সেই প্রশ্নই তুলছেন। নারীর প্রকৃত সৌন্দর্যের সংজ্ঞা বদলে দিতেই প্রচলিত সব ধারাবাহিকের স্ট্রিমের বিপরীতে হেঁটে স্টার জলসায় বিকেল ৫.৩০ টার স্লটে জায়গা করে নিয়েছে “ওগো নিরুপমা”।

এই ধারাবাহিকের মুখ্য চরিত্রাভিনেত্রী অর্থাৎ “নিরুপমা”র চরিত্রটি যিনি দর্শকদের সামনে ফুটিয়ে তুলেছেন তাঁর নাম অর্কজা আচার্য (Arkaja Acharjee)। ধারাবাহিকে এই মুহূর্তে দ্বৈত ভূমিকায় অভিনয় করছেন তিনি।

 

যেখানে একদিকে কালো, কুৎসিত, দাঁত উচু চেহারার রুপহীন “নিরুপমা”র ভূমিকায় অভিনয় করতে দেখা যায় তাকে। পর্দায় যাকে এত কুৎসিত দেখায়, বাস্তবেও কি তাঁর রূপ এমনই কদাকার? স্বভাবতই এই প্রশ্ন উঠবে নেটিজেনদের মনে।

না, অর্কজা আচার্য কিন্তু বাস্তবে এতটা কুৎসিত মোটেই নন। বরং টলিউডের তাবড় তাবড় সুন্দরীদের তালিকায় ফেলা যায় তাঁকে। এতদিন ধারাবাহিকের প্রয়োজনে অর্কজা নিজেকে লাইমলাইটের আড়ালে লুকিয়ে রেখেছিলেন। যাতে তাঁর আসল চেহারা প্রকাশ না হয়ে যায়। তবে সম্প্রতি তাঁর ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইলে তাঁর অপরূপ সৌন্দর্য ধরা পড়েছে।

স্টাইল স্টেটমেন্ট, ফ্যাশন, রূপের দিক থেকে টলিউডের অন্যান্য নায়িকাদের তুলনায় কোনও অংশেই কম নন এই সুন্দরী। পর্দায় যাকে এতটা “ডি-গ্ল্যামারাস” করে রাখা হয়েছে, বাস্তবের মাটিতে তিনি যে কতটা সুন্দরী, আবেদনময়ী এবং আকর্ষণীয়া তা তাঁর ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইল ঘাঁটলেই বোঝা যায়।

তাঁর রুপের জাদু বিশেষত তাঁর মায়াবী চোখ দুটি যে কারোকে আকর্ষণ করবেই। বিশেষত পুরুষ অনুরাগীদের রাতের ঘুম কেড়ে নিতে পারেন টলিউডের নবাগতা এই সুন্দরী অভিনেত্রী।

প্রসঙ্গত, অভিনয়ের জগতে অবশ্য নতুন নন অর্কজা। ইতিপূর্বে থিয়েটারের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন অভিনেত্রী। তবে স্টার জলসার “ওগো নিরুপমা” ধারাবাহিক মারফত লাইম লাইটে আসার সুযোগ পেয়েছেন এই সুন্দরী অভিনেত্রী।