লিপস্টিক দিয়ে সিঁদুরদান নিয়ে খিল্লি, ট্রোলারদের ধুয়ে দিলেন ধূলোকণা অভিনেত্রী

বাংলা সিরিয়ালের ইতিহাসে এই প্রথম, সিন্দুর নয়, লিপিস্টিক দিয়ে হল সিঁদুর দান

ফের একবার সমালোচনার মুখে লীনা গাঙ্গুলীর (Leena Ganguly) সিরিয়াল। স্টার জলসাতে লীনা গাঙ্গুলির লেখনীতে যে কটি সিরিয়াল এখন চলছে তার মধ্যে অন্যতম জনপ্রিয় ‘ধূলোকণা’ (Dhulokona)। এই সিরিয়ালে এখন বিয়ের সিজন চলছে। না, নায়ক-নায়িকার বিয়ে নয়, লীনা গাঙ্গুলী তার লেখনীর মাধ্যমে নায়কের সঙ্গে অন্য এক মেয়ের বিয়ে দিচ্ছেন। যদিও সমালোচনার বিষয়বস্তু সেটা নয়, দর্শকরা বাংলা সিরিয়ালে সিঁদুরের বদলে লিপস্টিক দানে বিয়ে দেখে বেশ অবাকই হয়েছেন।

সিরিয়ালের সম্প্রতি দেখানো হয়েছে লালন এবং তিতিরের বিয়েটা হয়ে গিয়েছে। তবে আদেও এই বিয়েটা বৈধ কিনা সেই নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। সমস্ত আচার অনুষ্ঠান মেনে লালন-তিতিরের বিয়ে হলেও শেষ মুহূর্তে এসে সিঁদুরের পরিবর্তে লিপস্টিক দিয়ে হল সিঁদুর দান। এসব দেখে তো চোখ কপালে উঠলো দর্শকদের। সোশ্যাল মিডিয়াতে এই নিয়ে তুমুল সমালোচনাও হচ্ছে।

সিঁদুর দানের মুহূর্তে তিতির জানায় তার নাকি রঙে এলার্জি রয়েছে। তাই সিঁদুর পড়লে তার ক্ষতি হতে পারে। ঠিক এই কারণেই লালনকে সে বিকল্প উপায় হিসেবে লিপস্টিক পরিয়ে দিতে বলে তার সিঁথিতে। এর আগে বাংলা সিরিয়ালে উড়ন্ত সিঁদুর, উড়ন্ত মালা বদলের মাধ্যমে বিয়ে অনেক দেখেছেন দর্শকরা। তবে এইভাবে লিপস্টিকও যে বিয়ের কাজে আসতে পারে সেটা কখনও কল্পনা করতে পারেননি। সেটাই করে দেখিয়েছে ধূলোকণা।

এই নিয়ে বিতর্কে যখন চরমে তখন শেষমেষ মুখ খুললেন তিতির চরিত্রের অভিনেত্রী সম্পূর্ণা মণ্ডল। ধারাবাহিকে আসলে এইভাবে বিয়ের আইডিয়াটা দিয়েছিলেন তিনিই। এই অভিনব ভাবেই তার সঙ্গে লালনের বিয়ে হয়েছে। এই প্রসঙ্গে আনন্দবাজারের কাছে মুখ খুলেছেন সম্পূর্ণা। তিনি অবশ্য এর মধ্যে অদ্ভুত কিছুই খুঁজে পাননি। উল্টে অন্যান্য সিরিয়ালের বিয়ে নিয়ে পাল্টা প্রশ্ন ছুঁড়ে দিয়েছেন তিনি।

সম্পূর্ণার প্রশ্ন, “লিপস্টিক দিয়ে শুধু কেন? হাওয়ায় উড়ে সিঁদুর নায়িকার মাথায় এসে পড়ল, হাত কেটে রক্ত দিয়ে নায়িকার সিঁথি লাল করে দেওয়া হল। এমন অনেক দৃশ্যই তো দেখা যায়। এত দিন এই সব বিষয় নিয়ে অনেকেই আলোচনা করে এসেছেন। তাঁদের কোনও উত্তর দেওয়ার বাসনা আমার নেই। এত জনকে বাধা দেওয়ার ক্ষমতাও আমার নেই। আর মেগা সিরিয়ালে এমনটা হতেই পারে।”

সিরিয়ালে বিয়ে হতে দেখা গেলেও সম্পূর্ণার বয়স কিন্তু এখন অনেক কম। তিনি একাদশ শ্রেণির ছাত্রী। ইতিহাস এবং দর্শন নিয়ে পড়াশোনা করছেন সম্পূর্ণা। আপাতত ‘ধূলোকণা’ ছাড়া তিনি আর কোনও সিরিয়ালে কাজ করছেন না। কিন্তু একটি ছবির কাজ সম্প্রতি শেষ করেছেন। আপাতত অভিনয়ের বাইরে বাকি সময়টুকু মন দিয়ে পড়াশোনা করতে চান অভিনেত্রী।