চিরাচরপ্রথা ভেঙে বোনপোকে ‘মিমিভাত’ খাওয়ালেন শ্রুতি, প্রশংসায় পঞ্চমুখ নেটিজেনরা

'সবসময় মামাভাত কেন, মিমিভাত নয় কেন', বোন-পোর মুখে ভাত দিয়ে চিরাচরিত প্রথা ভাঙলেন শ্রুতি দাস

Shruti Das shared Mimibhat Picture of Her Relative

চিরাচরিত প্রথা ভাঙতে তার জুড়ি মেলা ভার। বর্ণবৈষম্যের বিরুদ্ধে বারবার রুখে দাঁড়িয়েছেন শ্রুতি দাস (Shruti Das)। নেট মাধ্যমে সমালোচকদের সফট টার্গেট তিনি। বারবার রেসিজমের শিকার হতে হয় তাকে। সামাজিক মাধ্যমে চরম হেনস্থা জোটে তার ভাগ্যে। তবে কোনও কিছুই তাকে পিছিয়ে রাখতে পারে না। অভিনেত্রী বারবার সোচ্চার হয়েছেন অপমানের বিরুদ্ধে। তবে এবার তার লড়াই সমাজের চিরাচরিত প্রথার বিরুদ্ধে। বোনপোর মুখে ভাতের অনুষ্ঠানে নিজের হাতে তাকে খাইয়ে দিয়ে নজির রাখলেন অভিনেত্রী।

সাধারণত বাঙালি সংস্কৃতিতে যে কোনও শিশুর মুখে প্রথমবার ভাত তুলে দেন মামারা। শ্রুতির প্রশ্ন, “সব সময় মামাভাত কেন? মা-মাসিরাই তো খাওয়ায় রোজ বাচ্চাদের!” ইনস্টাগ্রামে এই প্রশ্ন তুলে ধরলেন শ্রুতি। চিরাচরিত প্রথার বিরুদ্ধে যেন রীতিমতো চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন অভিনেত্রী। বোনপোর মুখে ভাতের অনুষ্ঠানের একগুচ্ছ ছবি তিনি সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করেছেন।

একরত্তি খুদেকে নিজের হাতে ভাত খাইয়ে দিচ্ছেন শ্রুতি। বেশ কিছু মজার মজার মুহূর্তের ছবিও ধরা পড়েছে শ্রুতির ইনস্টাগ্রাম প্রোফাইলে। ক্যাপশনে অভিনেত্রী লিখেছেন, “নিজের বোনপো কে মিমিভাত খাওয়ানোর মজাই আলাদা সাথে success ও প্রথা ভাঙার আলাদাই আনন্দ Why always মামাভাত? মা মাসি রাই তো খাওয়ায় রোজ বাচ্চা দের বাবা মেসো রা কদাচিৎ”।

সামাজিক মাধ্যমে শ্রুতি যে বার্তা দিতে চাইলেন তার পরিপ্রেক্ষিতে মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা যাচ্ছে তার কমেন্ট বক্সে। নেটিজেনদের একাংশ অবশ্য শ্রুতির ‘মিমিভাত’ দেওয়া দেখে খুশি হয়েছেন। তবে অনেকেই শ্রুতির সমালোচনা করছেন। শ্রুতিকে নিয়ে ট্রোল করছেন তারা। তাদের দাবি, শ্রুতি ‘ফুটেজ খাওয়ার’ জন্য এই পোস্ট করেছেন। তবে শ্রুতির মানসিকতাকে সাধুবাদ জানিয়েছেন অনেকেই।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Shruti Das (@shrutidas_real)

ত্বকের রঙ থেকে শুরু করে ব্যক্তিগত জীবনে বয়সের তুলনায় বড় পরিচালকের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ককে কেন্দ্র করে নেটিজেনরা বারবার বিঁধেছেন শ্রুতিকে। সামাজিক মাধ্যমে তাকে বারবার কটাক্ষের মুখে পড়তে হয়। তবে শ্রুতি বরাবর সাহসী মানসিকতার সঙ্গে সব প্রশ্নের জবাব দিয়েছেন। এবার ফের সাহসী এক পদক্ষেপ নিলেন শ্রুতি। যার জন্য তার প্রশংসায় পঞ্চমুখ হলেন সকলে।