১৪ বার গর্ভধারণে ব্যর্থ, সালমান খানের পরামর্শে গর্ভবতী হন এই অভিনেত্রী

একাধারে অভিনেত্রী এবং নৃত্যশিল্পী কাশ্মীরা শাহর (Kashmira Shah) জন্ম ১৯৭১ সালের ২ রা ডিসেম্বর মুম্বাইয়ে। মিশ্র সংস্কৃতির পরিবেশে বড় হয়ে ওঠা তার। তার বাবা মারাঠি এবং মা গুজরাতি। ছেলেবেলা থেকেই অভিনয়ের প্রতি টান ছিল তার। সেই স্বপ্নের পথে চলা শুরু করেন মাত্র ১৬ বছর বয়স থেকে মডেলিং করে। তারপর ১৯৯৩ সালে ‘মিস ইউনিভার্স ওয়ার্ল্ড’ খেতাব পান কাশ্মীরা শাহ (Kashmira Shah)।সেই বছরই দক্ষিণ কোরিয়ায় সৌন্দর্য প্রতিযোগিতায় ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেন অভিনেত্রী।

১৯৯৬ সালে প্রথম অনস্ক্রিন আসার সুযোগ পান তেলুগু ছবি ‘ইন্টলো ইল্লালু ভান্টিন্টলো প্রিয়ুরালু’তে। তারপরই একের পর এক হিন্দি ছবিতে তাকে দেখা গেলেও সেই সময় আইটেম গার্ল  হিসেবেই অধিক পরিচিত ছিলেন তিনি।‘বাস্তব’, ‘কুরুক্ষেত্র’ এবং ‘মার্ডার’ সহ বিভিন্ন ছবিতে দেখা যায় তাকে।

তারপর আইটেম গার্ল ইমেজ থেকে বেরিয়ে অভিনেত্রী হিসেবে ধরা দেন ‘ইয়েস বস’, ‘প্যায়ার তো হোনা হি থা’, ‘হিন্দুস্তানি কি কসম’, ‘দুলহন হম লে যায়েঙ্গে’, ‘কহিঁ প্যায়ার না হো যায়ে’, ‘ওয়েক আপ সিড’ ইত্যাদি সিনেমায়। হিন্দি ছবির পাশাপাশি ‘জয় জয় মহারাষ্ট্র মাঝা’, ‘শিকারি’ র মতন মারাঠি ছবিতে অভিনয় করেন তিনি।

এর পাশাপাশি টেলিভিশনেও ‘প্রাইভেট ডিটেক্টিভ: টু প্লাস টু ওয়ান’, ‘হম নে লি হ্যায় শপথ’, ‘সিয়া কে রাম’ সিরিয়ালেও অভিনয় করেছেন তিনি।বিভিন্ন রিয়্যালিটি শো যেমন বিগ বস’, ‘ফিয়ার ফ্যাক্টর’, ‘ইস জঙ্গল সে মুঝে বঁচাও’, ‘দিল জিতেগি দেশি গার্ল’-এও দেখা গেছে তাকে।

কর্মক্ষেত্রে যথেষ্ট উন্নতি করলেও ব্যাক্তিগত জীবনে নানান ওঠাপড়ার মধ্যে দিয়ে যেতে হয়েছে তাকে।তিনি প্রথম সম্পর্কে জড়ানএকটি ডেটিং ওয়েবসাইটে ব্র্যাড লিস্টারম্যানের সঙ্গে। প্রথম আলাপেই বিয়ের সিদ্ধান্ত নেন তারা এবং বিয়ে করেন লাস ভেগাসে গিয়ে।কিন্তু ৫ বছর পর সেই সংসার ভেঙে যায় কাশ্মীরার।২০০৭ সালে তাদের সংসার ভেঙে যায়।

জানা যায়,কাশ্মীরার সাথে কৃষ্ণা অভিষেকের (Krishna Abhishek) সম্পর্কের জেরেই ভেঙে যায় তাদের দাম্পত্য।সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে কাশ্মীরা শাহ (Kashmira Shah) জানান, যখন তিনি বুঝতে পেরেছিলেন যে তিনি অভিষেকের প্রেমে পড়েছিলেন,তখনই স্বামীকে সব কথা জানিয়ে দেন তিনি। কোনওরকম লুকোচুরি করেননি বলেই জানান তিনি।  ২০০৬ সালে ‘অউর পাপ্পু পাস হো গ্যয়া’ ছবির শ্যুটিংয়ে তাদের আলাপ এবং তারপর প্রেম শুরু হয় তাদের।

২০০৭ সালে তাদের ডিভোর্সের পর সেই বছরেই রিল্যালিটি শো ‘নাচ বালিয়ে’-এর সেটে প্রকাশ্যে কাশ্মীরাকে প্রেম প্রস্তাব দেন কৃষ্ণা অভিষেক (Krishna Abhishek)।কিন্তু সেই সম্পর্কও বিভিন্ন ওঠা নামার মধ্যে দিয়ে গেছে। ৫ বছর লিভ ইন করার পর ২০১২ সালে বিয়ে করেন তারা। অবশ্য ২০১৪ পর্যন্ত তাদের দাম্পত্যের বিষয়টি গোপনই রেখেছিলেন তারা।

তাদের বিয়ের খবর প্রথম প্রকাশ্যে আসে যখন ২০১৪ সালে একটি অনুষ্ঠানে সিঁদুর পরে উপস্থিত হন কাশ্মীরা। অবশ্য এই সম্পর্কে কাশ্মীরা জানান,  তারা লাস ভেগাস থেকে গাড়িতে ১ ঘণ্টার দূরত্বে একটি গির্জায় তড়িঘড়ি করেই বিয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন।কিন্তু বিয়ের পরে নতুন চ্যালেঞ্জের সন্মুখীন হলেন তিনি। কাশ্মীরা শাহ (Kashmira Shah) নিজেই জানান ৩ বছর ধরে মা হওয়ার চেষ্টা করছিলেন তিনি আইভিএফ (IVF) পদ্ধতিতে। ১৪ বার সন্তান ধরনের প্রচেষ্টা তাদের বিফলে গেছে বলেও জানান অভিনেত্রী নিজেই।অন্যদিকে আইভিএফ পদ্ধতিতে বারবার ইনজেকশন নেওয়ার প্রভাবে তার শরীর খারাপ হয়ে উঠছিল।

২০১৭ সালে মা হন তিনি, যমজ সন্তানের।সারোগেসির (Surrogacy) মাধ্যমে মা হন তিনি।একটি সাক্ষাৎকারে তাকে যখন জিজ্ঞেস করা হয় যে তিনি কেন সারোগেসি (Surrogacy) বেছে নিয়েছেন, তখন তিনি জানান আইভিএফ (IVF) পদ্ধতিতে বারবার ইনজেকশন নেওয়ার প্রভাবে ওজন বেড়ে যাওয়া, খিটখিটে হয়ে পড়া-সহ নানারকম শারীরিক এবং মানসিক সমস্যার সন্মুখীন হচ্ছিলেন তিনি। সেই সময় সালমান খানের (Salman Khan) পরামর্শে সারোগেসি বেছে নেন তিনি।