ছাড়িয়ে গেল নোংরামির সীমা, হাতের বাইরে পরিস্থিতি, ধর্ষণের হুমকি পেলেন রূপঙ্করের বয়স্কা মা

মাত্রা ছাড়িয়ে গেল বিতর্ক! ধর্ষণের হুমকি পেল রূপঙ্করের মা, তোলপাড় সোশ্যাল মিডিয়া

Rupankar Bagchi Earned only 2500 Rupees by Posting 54 Videos on YouTube

কেকের (K K) মৃত্যুর পর দেখতে দেখতে কেটে গেল প্রায় এক সপ্তাহ। এখনও রূপঙ্কর বাগচীকে (Rupankar Bagchi) একচুল রেহাই দিতে নারাজ নেটিজেনদের একটা বড় অংশ। এক সপ্তাহের মাথাতেও কেকে-রূপঙ্কর বিতর্ক শান্ত হল না। বিগত কয়েকটা দিন চরম বিভীষিকাময় পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে কাটাতে হয়েছে রূপঙ্কর এবং তার পরিবারকে। নেটিজেনদের বিদ্বেষে সোশ্যাল মিডিয়াতে কার্যত চোখ রাখা দায়।

এতদিন রূপঙ্করের পাশাপাশি তার মেয়ে এবং বউকেও নোংরা কটাক্ষ করেছেন নেটিজেনরা। তবে এবার কার্যত নোংরামির সব সীমা অতিক্রম করে গেলেন তারা। রূপঙ্করের বয়স্কা মাকেও এই বিতর্কের মাঝে টেনে আনা হয়েছে। শুধু তাই নয় তাকে দেওয়া হল ধর্ষণের হুমকিও!

সোশ্যাল মিডিয়াতে সম্প্রতি একটি ছবি ভাইরাল হয়েছে। এই ছবিটি আসলে ফেসবুকের একটি পোস্ট যা শেয়ার করেছেন পলাশ মাইতি নামের এক ব্যক্তি। পোস্টে লেখা রয়েছে, ‘আমার ভগবানের কাছে একটাই প্রার্থনা, একদিন রূপঙ্কর বাগচীর মাকে যেন ধর্ষণ করা হয়।’ ওই ব্যক্তি তার পোস্টে একটা লাভ সাইনও ব্যবহার করেছেন। বলা বাহুল্য, এত নিচু মানসিকতার মন্তব্যের জন্য প্রস্তুত ছিল না নেটদুনিয়া।

এই পোস্ট নজরে আসতেই সোশ্যাল মিডিয়া আবারও সরগরম। বিষয়টা এবার হাতের বাইরে চলে যাচ্ছে, এমনই মন্তব্য করছেন নেটিজেনরা। কেকে-রূপঙ্কর বিতর্কের মাঝে রূপঙ্করের গোটা পরিবারকে যেভাবে হেনস্থা করা হচ্ছে তা কোনওমতেই সমর্থনযোগ্য নয়। এবার গোটা বিষয়টি এখানে বন্ধ হওয়া দরকার বলে দাবি করছেন নেটিজেনদের একাংশ।

উল্লেখ্য, কেকে প্রসঙ্গে রূপঙ্করের বক্তব্য ভাইরাল হওয়ার পর রূপঙ্কর এবং তার পরিবারের প্রতি কু-মন্তব্যের বন্যা বয়ে যায়। রূপঙ্করের স্ত্রী চৈতালিকে ফোন করে হুমকিও দেওয়া হতে থাকে। যে কারণে পুলিশের দ্বারস্থ হন তিনি। রূপঙ্করের বাড়ির বাইরে বসে কড়া প্রহরা। এরপর সাংবাদিক বৈঠক ডেকে নিঃশর্ত ক্ষমা চেয়েছিলেন গায়ক। কিন্তু তাতেও বিতর্ক এড়ানো যাচ্ছে না। এবার কয়েকজনের নীচু মনোভাবের শিকার হতে হল তার বয়স্কা মাকেও। যা মোটেও মেনে নিতে পারছেন না নেটিজেনরা।