শাঁখা-সিঁদুর পরে দুই ধর্মের ‘অসম্মান’, নুসরাতের ওপর ক্ষুদ্ধ নেটিজেনরা

টলিউড (Tollywood) অভিনেত্রী নুসরাত জাহান (Nusrat Jahan) বিতর্ককে যেন সর্বদা সঙ্গে নিয়ে চলেন! তিনি যাই করুন না কেন, নেটিজেনরা তাকে নিয়ে সমালোচনা করার জন্য মুখিয়েই থাকেন। সম্প্রতি পূজা উপলক্ষে নেট মাধ্যমে বঙ্গ তনয়ার সাজে সেজে হাজির হয়েছিলেন নুসরাত। তবে তার সিঁথিতে সিঁদুর এবং হাতে শাঁখা-পলা দেখে কার্যত তুমুল চটে গিয়েছেন নেটিজেনরা।

ইনস্টাগ্রামে ভাইরাল ওই ভিডিওটিতে দেখা যাচ্ছে লাল রঙের একটি ঢাকাই শাড়ি পরে, খোঁপায় ফুলের মালা জড়িয়ে হাতে বরণডালা নিয়েছেন নুসরাত। তার গলায় রয়েছে কুন্দনের হার। চোখে গাঢ় কালো কাজল, কপালে ছোট্ট লাল টিপ, সিঁথিতে জ্বলজ্বল করছে সিঁদূর। কখনও প্রদীপ জ্বালিয়ে, কখনও বা বরণ ডালা সাজিয়ে হাসিমুখে ক্যামেরার সামনে তাকিয়ে পোজ দিচ্ছেন অভিনেত্রী।

এই ভিডিও দেখেই কার্যত নেট মাধ্যমে সমালোচনার ঝড় বইছে। নেটিজেনরা ব্যক্তিগতভাবে তাকে কটাক্ষ করেছেন। কমেন্ট বক্সে কেউ লিখেছেন, ‘আসছে বছর আবার বিয়ে হবে’! কেউ আবার লিখছেন নুসরাত মুসলিম নামে কলঙ্ক! জনৈক নেটিজেন ধর্মের প্রসঙ্গ টেনে এনে মন্তব্য করেছেন, ছি ছি ছি, আপনার লজ্জা করে না একজন মুসলিম হয়ে হিন্দু ভাই এর ধর্ম নিয়ে খেলতে। আপনি তো দুই ধর্মকে অপমান করছেন”!

যদিও নুসরাতের শেয়ার করা এই ভিডিও দেখে নুসরাতের অনুরাগীরা বেজায় খুশি। নুসরাতের ফ্যানপেজগুলি এই ভিডিওতে ভালোবাসার প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে। তবে ভিডিওর মন্তব্য বাক্সে নুসরাতের প্রতি কার্যত কটাক্ষের বন্যা বয়ে যাচ্ছে। কেউ কেউ আবার যশরতকে রেজিস্ট্রি করে বিয়ে করে নেওয়ার পরামর্শও দিয়েছেন।

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Nusrat (@nusratchirps)

উল্লেখ্য, আপাতত সন্তানকে নিয়ে বেশ ভালোভাবেই সুখী জীবনযাপন করছেন যশরত। আনুষ্ঠানিকভাবে বিয়ের কথা ঘোষণা না করলেও নুসরাত ইতিমধ্যেই যশকে নিজের স্বামী বলে মানতেও শুরু করেছেন। যশের জন্মদিনে কেকের উপর যশকে ‘স্বামী’ বলেই উল্লেখ করেছেন তিনি। যশরতের সম্পর্ক নিয়ে গুঞ্জন এমনিতেই কিছু কম ছিল না। এখন বারংবার সিঁথিতে সিঁদুর পরে নুসরাতকে প্রকাশ্যে আসতে দেখে নেটিজেনদের ধারণা বদ্ধমূল আরও হচ্ছে।