পেঁয়াজ-রসুন ছাড়া সম্পূর্ণ নিরামিষ আলু-পটলের তরকারি, এইভাবে রাঁধলে আজীবন মুখে লেগে থাকবে

পেঁয়াজ-রসুন ছাড়া পটলের তরকারি, এইভাবে রাঁধলে ১ থালা ভাত শেষ হবে নিমেষেই

Niramish Alu Potoler Torkari Recipe

গরমের সবজি হিসেবে পটল ইদানিং প্রায় প্রতিদিনই বাঙালির পাতে থাকছে। ভাজা, তরকারি কিংবা ঝোল হিসেবে প্রত্যেক দিনই একঘেয়ে রেসিপি খেতে আর কতদিনই বা ভালো লাগে? রোজ রোজ একই রান্না খেলে পটলের প্রতিই অরুচি ধরে যাবে। তাই মাঝে মধ্যে বরং পেঁয়াজ-রসুন ছাড়া সম্পূর্ণ নিরামিষ কিন্তু দারুণ স্বাদের আলু-পটলের তরকারি (Alu Potoler Special Recipe) রান্না করেও দেখতে পারেন। এই পদ কিন্তু নিরামিষ হলেও মাছ-মাংসের স্বাদকে হার মানাতে পারে। তাই আর দেরি না করে বরং চটজলদি শিখে ফেলুন রান্নাটা।

প্রয়োজনীয় উপকরণ

  • ১. পটল,
  • ২. আলু,
  • ৩. জিরে, মৌরি, ধনে, গোলমরিচ,
  • টমেটো, কাঁচা লঙ্কা, আদা একসাথে বাটা,
  • ৪. হলুদ গুঁড়ো, কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো
  • সাদা জিরে, তেজপাতা, এলাচ লবঙ্গ, দারুচিনি,
  • ৫. ঘি,
  • ৬. গরম মশলা
  • ৭. পরিমাণ মত নুন,
  • ৮. রান্নার জন্য তেল,
  • ৯. সামান্য চিনি,

বানানোর পদ্ধতি

প্রথমে আলু এবং পটলগুলো ভালো করে ধুয়ে খোসা ছাড়িয়ে ডুমো ডুমো করে কেটে নিন। এবার তার মধ্যে নুন এবং হলুদ মাখিয়ে রেখে দিন কিছুক্ষণ।

কড়াইতে পরিমাণমতো জিরা, ধনে, মৌরি, গোলমরিচ এবং ২টো তেজপাতা দিয়ে কিছুক্ষণ নেড়ে নিন। এবার এই গরম করে নেওয়া মসলা মিক্সিতে গুঁড়িয়ে বানিয়ে নিন একটা স্পেশাল মশলা যা রান্নায় স্বাদ এনে দেবে।

এর পরের ধাপে কড়াইতে তেল গরম করে পটল এবং আলু ভেজে তুলে নিতে হবে। তারপর তেলের মধ্যে গোটা জিরে, এলাচ, লবঙ্গ, দারচিনি ফোড়ন দিন। কিছুক্ষণ নেড়েচেড়ে নিয়ে কড়াইয়ের মধ্যে হলুদ গুঁড়ো, কাশ্মীরি লঙ্কার গুঁড়ো, স্বাদমতো নুন এবং চিনি মিশিয়ে ভালো করে মশলা কষিয়ে নিন।

মশলা কষানো হয়ে গেলে এর মধ্যে অল্প জল দিয়ে ভাল করে মিশিয়ে নিয়ে ভেজে রাখা-পটল আলু দিয়ে আবার কষিয়ে নিতে হবে। মশলা কষানো হয়ে গেলে আগে থেকে তৈরী করে রাখা গুঁড়ো মশলা এরমধ্যে দিয়ে দিন পরিমাণ অনুসারে। তারপর সামান্য গরম জল মিশিয়ে ৫-৭ মিনিটের জন্য রান্না হতে দিন।

৭ মিনিট পর ঢাকনা খুলে সামান্য গরম মশলার গুঁড়ো ছড়িয়ে নিয়ে উপর থেকে এক চামচ ঘি ছড়িয়ে ঢেকে আরও ৩ মিনিট রান্না হতে দিন। এবার নামিয়ে নিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন আলু-পটলের এই বিশেষ রেসিপি।