নির্বাচনের ফল কী হতে পারে? পাল্লা ভারী কার দিকে

How much seats will TMC win on upcomin assembly election 2021

আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনের আগে বাংলায় ভোট যুদ্ধের পটভূমি তৈরি। শেষপর্যন্ত কার দখলে যাবে নীলবাড়ি? সেইদিকেই লক্ষ সকলের। সি ভোটার সহ বিভিন্ন সমীক্ষায় দেখা গেছে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বেশী ভোট পড়েছে তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) দিকে। অন্যদিকে তৃণমূল কংগ্রেসের বিরুদ্ধে গত ১০ বছরে শাসন ব্যবস্থায় বড় বড় দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে যার মধ্যে অন্যতম হলো সারদা, নারদা,রেশন দুর্নীতি এবং আম্ফানকালীন দুর্নীতির অভিযোগ।এর ফলে বারবার বিরোধীরা সরব হয়েছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে।

তৃণমূল কংগ্রেসের প্রথম সারির নেতারা নাম লিখিয়েছেন গেরুয়া শিবিরে।এর ফলেও চাপের মুখে পড়ছে তৃণমূল নেতৃত্ব। রাজনৈতিক বিশ্লেষকদের মতে, এবারের নির্বাচনে বিজেপির অন্যতম ড্র ব্যাক হতে পারে মুখ্যমন্ত্রী পদ প্রার্থীর নাম ঘোষণা না করা। এখনো পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রীর মুখ নরেন্দ্র মোদিকে সামনে রেখেই নির্বাচন জেতার কৌশল করছে বিজেপি। এই দিক থেকে দেখতে গেলে মুখ্যমন্ত্রী পদপ্রার্থী হিসেবে মমতা ব্যানার্জীর জনপ্রিয়তা অনেকটাই বেশি। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নিঃসন্দেহে বাংলার সবথেকে বড় রাজনীতিবিদ।তার বিপক্ষে মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দাঁড়ানোর মত লোকের অভাব রয়েছে বিজেপিতে।

রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা মনে করছেন এবার বিধানসভায় কিছুটা পিছিয়ে থাকতে পারে গেরুয়া শিবির।অন্যান্য রাজ্যেও যেখানে লোকসভার পরে বিধানসভা হয়েছে, দেখা গেছে ভোটের পরিমাণ কমেছে বিজেপির ঝুলিতে। লোকসভা ভোটে মনে করা হয়েছিল বামের ভোট রামে গেছে। কিন্তু এইবার বাম কংগ্রেস জোট এর ভোট যদি তাদের ঘরেই পড়ে সেক্ষেত্রে ভোট কাটার প্রবল সম্ভাবনা আছে বিজেপির। অন্যদিকে হিন্দু সংহতি মঞ্চ, শিবসেনা বা মীমের মত দলগুলিও নামছে ভোট কাটার লড়াইতে। যদিও রাজনীতির ক্ষেত্রে কখন পাশা পাল্টে যায় তা বলা অত সহজ নয়। এখন বঙ্গের রাজনীতিতে পারাডক্স থেকে উচু মহলেও চলছে জল্পনা। এবার নির্বাচনে কে থাকবে বা কে যাবে সবটাই নির্ভরশীল জনগণের ওপর।