শীঘ্রই ভারতের টেলিকম জগতে আসছে এই ৫টি বড়সড় পরিবর্তন

নতুন বছরে পুরোনো অনেক নিয়ম বিধিতেই কিছু কিছু পরিবর্তন এসেছে। মানুষের রোজকার জীবনের সাথে জড়িত নানান পরিষেবার ক্ষেত্রেই এসেছে পরিবর্তন। তেমনই টেলিকম জগতেও নতুন বছরে আসতে পারে বেশ কিছু নতুন পরিবর্তন। এক নজরে দেখে নেওয়া যাক এগুলি কি কি

৪জি রিচার্জের মূল্যবৃদ্ধি

এই বছরেই জিও(Jio), এয়ারটেল (Airtel) ও ভি (Vi) তাদের ৪জি রিচার্জের দাম বাড়াতে পারে।বিশেষজ্ঞদের কথায় এই তিনটি কোম্পানিই তাদের রিচার্জের দাম ১৫ শতাংশ থেকে ২০ শতাংশ বাড়াতে পারে রিচার্জের দাম।২০১৯ সালের ডিসেম্বরে এই কোম্পানিগুলো ৪জি রিচার্জের দাম বাড়িয়েছিল। এই বছরে আবারও দাম বাড়তে পারে।

বিনামূল্যে সারা দেশে ওয়াই-ফাই পরিষেবা

২০২০ সালের ডিসেম্বরে একটি বিশেষ প্রজেক্টের ঘোষণা করা হয়েছিল কেন্দ্রের তরফ থেকে।মূলত ওয়্যারলেস টেলিকম পরিষেবার উন্নতির জন্য দেশজুড়ে চালু হতে যাওয়া এই পরিষেবার নাম পিএম ওয়ানি।এক্ষেত্রে বিনামূল্যে পাবলিক ওয়াই ফাই ব্যাবহার করতে পারবেন সাধারণ মানুষ।এটি ডিজিটাল ইন্ডিয়ার দিকে আরও একটি গুরুত্বপূর্ন প্রদক্ষেপ হবে বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

বন্ধ হবে ৩জি পরিষেবা

ধীরে ধীরে দেশ জুড়ে বন্ধ হতে চলেছে ৩জি পরিষেবা।ইতিমধ্যেই শুরু হয়ে গেছে এই প্রক্রিয়া। ভি বেঙ্গালুরু ও চেন্নাইতে এই পরিষেবা বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। দিল্লিতেও তা বন্ধ হচ্ছে আগামী ১৫ই জানুয়ারি থেকে।এই বছরের মধ্যে পুরো দেশেই এই পরিষেবা বন্ধ হতে পারে।

ওটিপি ফেজআউট

এয়ারটেল, ভি ও জিও নতুন বছরে একটি নতুন ব্যবস্থা নিয়ে আসতে পারে। এর নাম ওটিপি ফেজআউট। এই পদ্ধতিতে ব্যাক্তি টেলিকম কোম্পানির সাহায্যেই কোনও ওয়েবসাইট ও অ্যাপে লগ ইন করতে পারবেন।সুতরাং বারবার লগ ইন করার ক্ষেত্রে ইউজার নেম, পাসওয়ার্ড ইত্যাদি মনে রাখার ঝক্কি থেকে রেহাই পাবে মানুষ।

 5 জি পরিষেবা

ইতিমধ্যেই জিওর তরফ থেকে জানানো হয়েছে ২০২১ সালের দ্বিতীয়ার্ধে এই সংস্থাই ভারতে প্রথম ৫জি পরিষেবা নিয়ে আসতে চলেছে। স্বাভাবিকভাবেই পিছিয়ে থাকবে না এয়ারটেল ও ভি।তারাও এই বছরেই ৫জি লঞ্চ করতে পারে।সুতরাং চলতি বছরেই সারা দেশে চালু হতে পারে ৫জি।