খুকুমণির গায়ে হাত! গুন্ডাদের শুঁটিয়ে লাল করে দিল খুকুমণি, দেখে হেসে কুটোপাটি নেটিজেনরা

নেচে নেচে গুন্দাদের শুঁটিয়ে লাল করে দিল খুকুমণি, দেখে হেসে কুটোপাটি নেটিজেনরা

স্টার জলসার (Star Jalsha) খুকুমণি হোম ডেলিভারি (Khukumoni Home Delivery) ধারাবাহিকটি শুরু থেকেই টিআরপি লিস্টে এগিয়ে। বাড়ি-বাড়ি হোম ডেলিভারিতে স্নেহ, মায়া-মমতা ফ্রি দিয়ে খাবার পৌঁছে দেওয়া খুকুমণি এখন বাংলার ঘরের মেয়ে হয়ে উঠেছে। শুধু অভিনয় দিয়ে নয়, খুকুমণির ডায়লগ থেকে শুরু করে তার মারধোরের স্টাইল এখন দর্শকদের খুব প্রিয় হয়ে উঠেছে। নিত্যদিন গুন্ডা-বদমাইশদের ধোলাই দেওয়া খুকুমণির অন্যতম কাজ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

বাড়িতে হোক বা রাস্তাঘাটে কিংবা বাজারে, খুকুমণির শত্রুদের সংখ্যা কিছু কম নয়। তারা প্রতিনিয়ত খুকুমণিকে হেনস্তা করার চেষ্টা করেই চলেছে। তবে খুকুমণি কোনওভাবেই দমে যাওয়ার পাত্রী নয়। সে উল্টে একাই গুন্ডাদের ধোলাই দিতে পারে। শুধু বিহানকে রক্ষা করাই নয়, গুন্ডা বদমাইশদের হাত থেকে নিজেকে রক্ষা করতেও ওস্তাদ খুকুমণি। তাই গুন্ডা বদমাইশরা তাকে ধাওয়া করলেই সে তাদের মেরে পাট পাট করে দেয়।

ধারাবাহিকে রয়েছে একাধিক ভিলেন। বিহানের বাড়ির লোকজন তো বটেই, পাড়ার গুন্ডা চপলদাও খুকুমণি-বিহানকে আলাদা করতে চায়। চপল প্রায়ই দলবল নিয়ে খুকুমণির উপর চড়াও হয়। তবে প্রত্যেকবার তাকে রীতিমত পেঁপে দিয়ে চেপে দেয় খুকুমণি। তবুও হাল ছাড়ে না চপল। বিহানের বাড়ির লোকের সঙ্গে হাত মিলিয়ে চপল বাজারে আসে খুকুমণিকে জব্দ করতে। খুকুমণির মাথায় বন্দুকের নল ঠেকিয়ে তাকে তুলে নিয়ে যেতে চেয়েছিল চপল। তবে খুকুমণির মারকাটারি অ্যাকশন স্টাইলে রণে ভঙ্গ দিতে বাধ্য হল গুন্ডা বদমাইশরা।

সদ্য সম্প্রচারিত এই পর্বে দেখানো হয়েছে খুকুমণি কিভাবে সবজির ব্যবহারে গুন্ডা বদমাইশদের শায়েস্তা করছে। তারপর লাঠি হাতে নিয়ে মাথার উপর বনবন করে ঘুরিয়ে গুন্ডাদের রাম ধোলাই দিল। খুকুমণি কে জব্দ করতে লাঠিসোটা হাতে চড়াও হয়েছিল গুন্ডারা। শেষমেষ খুকুমণির হাতেই পেটানি খেয়ে পালানোর পথ খুঁজে পায়না তারা। এমন মারকাটারি অ্যাকশন দেখেও নেটিজেনরা খুকুমণিকে নিয়ে ট্রোলে মেতেছেন। এমন মারপিটের দৃশ্য দেখে তারা হেসে কুটোপাটি।

খুকুমণি এবং বিহানের বিয়ের পর তাদের কোনও রকমে আলাদা করতে চায় বিহানের সৎ মা, ভাই, বৌদি এবং খুকুমণির মামা-মামীরা। তবে খুকুমণি তার রাজপুত্তুরের হাত ছাড়বে না। বিহানকে অত্যাচারের হাত থেকে বাঁচাতে খুকুমণি তার সব দায়-দায়িত্ব নিয়ে নিয়েছে। বিহানের মুখে ভাত যোগানোর দায়িত্ব খুকুমণির। তবে মাঝে মধ্যে এমন কিছু অ্যাকশন দৃশ্য নেটিজেনদের কাছে হাসির খোরাক হয়ে দাঁড়ায়। তেমনই একটি ভিডিও ভাইরাল হলো সামাজিক মাধ্যমে।