কোয়েল মল্লিকের ছেড়ে দেওয়া ছবি করেই আজ বলিউডের কুইন কঙ্গনা রানাউত

কোয়েল মল্লিকের জন্যই আজ বলিউড অভিনেত্রী হয়েছেন কঙ্গনা রানাউত

koel mallick and kangana ranaut

বলিউড (Bollywood) অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাওয়াত (Kangana Ranaut) এবং টলিউডের (Tollywood) সুপারস্টার নায়িকা কোয়েল মল্লিক (Koel Mallick), দুজনেই নিজ নিজ ইন্ডাস্ট্রিতে রাজত্ব করছেন আজ। অভিনয়গুণে দুজনেই শ্রেষ্ঠত্বের দাবী রাখেন। তবুও বাংলার মেয়ে কোয়েলের কাছে আজীবন কৃতজ্ঞ থাকতে হবে কঙ্গনাকে। কারণ যদি কোয়েল না থাকতেন তাহলে কঙ্গনা হয়ত কখনও সুপারস্টার হতে পারতেন না। আজ এই প্রতিবেদনে রইল এমন একটা ইতিহাস যা এই দুই নায়িকার জীবনটাই বদলে দেয়।

২০০৩ সালে ‘নাটের গুরু’ ছবির মারফত টলিউডে পা রাখেন রঞ্জিত মল্লিকের কন্যা কোয়েল মল্লিক। জিতের বিপরীতে তার অভিনয় সেই সময় দর্শকদের নজর কেড়েছিল। তারপর ক্রমশ একের পর এক ছবির দৌলতে তারা হয়ে ওঠেন তৎকালীন সময়ের সব থেকে সুপারহিট জুটি। দেখতে দেখতে তিন বছর পেরিয়ে যায়। ২০০৬, এই সালটাতেই একটা ঘটনা ঘটে যা কঙ্গনা এবং কোয়েলের জীবনটাই বদলে দেয়।

koel mallick

ওই বছর কোয়েলের ৫ টি ছবি পরপর মুক্তি পায়। যার মধ্যে মিঠুন চক্রবর্তীর সঙ্গে ‘এমএলএ ফাটাকেষ্ট’ও ছিল। বলিউড এবং টলিউডে তখন দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন মিঠুন। মিঠুনের সঙ্গে অভিনয় করে কোয়েলের জনপ্রিয়তা তখন আরও বাড়ে। ঠিক এই সময়েই কোয়েলের কাছে বলিউড থেকে একটা প্রস্তাব আসে। প্রস্তাবটি এসেছিল ‘গ্যাংস্টার’ ছবির জন্য। তবে কোয়েল সেই ছবির প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিলেন।

অন্যদিকে কঙ্গনার জীবনেও তখন ঝড় বইছে। বাড়ি ছেড়ে মুম্বাইতে তিনি এসেছিলেন অনেক স্বপ্ন নিয়ে। তবে তার জন্য অনেক বড় মাশুলও দিতে হয় তাকে। বলিউডের একটা ছবিতে অভিনয় পাওয়ার জন্য তিনি অনেক লাঞ্ছনা এবং যৌন নির্যাতন সহ্য করেছেন। তখন তিনি থাকতেন আদিত্য পাঞ্চোলির বাড়িতে। পরে বলিউডের মুখোশ খুলে দিয়ে কঙ্গনা তার তিক্ত অভিজ্ঞতা উগরে দেন।

প্রাইভেট গাড়ি হোক বা জমকালো পার্টি, বলিউডে প্রায় সব জায়গাতেই অবাধে যৌন লাঞ্ছনা সহ্য করতে হত কঙ্গনাকে। অবশেষে তার ভাগ্যে শিঁকে ছেড়ে। কারণ ‘গ্যাংস্টার’ ছবির প্রস্তাব কোয়েলের পর তার কাছেই আসে। আসলে ছবিতে যৌনদৃশ্য আছে শুনেই কোয়েল প্রস্তাবটি ফিরিয়ে দিয়েছিলেন। এদিকে কোয়েল ছবি থেকে সরে যেতেই ছবিটি চলে যায় কঙ্গনার কাছে। ছবির প্রস্তাব লুফে নেন কঙ্গনা।

এরপর আর কখনও কঙ্গনাকে ফিরে তাকাতে হয়নি। একটার পর একটা ছবির সুযোগ আসতে থাকে তার হাতে। এই সুযোগ তার কাছে আসতই না যদি না তিনি প্রথম সুযোগটা পেতেন। আসলে পাশ্চাত্য সংস্কৃতির সঙ্গে মানিয়ে নিয়ে ছোট পোশাক বা অন্তর্বাস পরে পর্দার সামনে খোলামেলা যৌনতা দেখানোতে আপত্তি ছিল কোয়েলের। তিনি নির্দ্বিধায় ’গ্যাংস্টারে’র মতো ছবির প্রস্তাব ফিরিয়ে দেন। অন্যদিকে কঙ্গনার ভাগ্য খুলে যায় কোয়েলের এই সিদ্ধান্তে।