জেপি নাড্ডা কোথায় যাবেন, কী খাবেন, কী থাকবে মেনুতে? দেখে নিন

কখনো আদিবাসী পরিবার কখনো মতুয়া পরিবার আবার কখনো বাউল পরিবার, বিজেপি নেতারা জনসংযোগ টানতে বারবার মধ্যাহ্নভোজ সেরেছেন এ রাজ্যে। আজ রাজ্যে আসছেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি JP Nadda। পূর্ব বর্ধমানের কাটোয়া রয়েছে তার একগুচ্ছ কর্মসূচি।

কাটোয়ার জগদানন্দপুর গ্রামের কৃষক মথুরা মণ্ডলের বাড়িতে মধ্যাহ্নভোজ পারবেন তিনি। অতিথি বরণের রঙের প্রলেপ পড়েছে মথুরা মণ্ডলের বাড়িতে। ঠিক করে ফেলেছেন মধ্যাহ্নভোজের মেনু। সকাল থেকেই শুরু হয়ে গিয়েছে রান্নার কাজ।

Source : ABP Ananda

অতিথি যেহেতু নিরামিষভোজী তাই মধ্যাহ্নভোজে কোন এলাহী আয়োজন না করে করা হয়েছে ঘরোয়া আয়োজন। অতিথির পাতে থাকছে লেবু, ভাত, শাক, রুটি, ডাল, আলুভাজা,বেগুন ভাজা, মিক্স্ড ভেজ সবজি, ফুলকপি-পনিরের তরকারি, চাটনি, পাপড় পায়েস ও নলেন গুড়ের রসগোল্লা।

সর্বভারতীয় সভাপতিকে বরণ করে নিতে বর্ধমান শহরে শেষ মুহূর্তের প্রস্তুতি তুঙ্গে। বিজেপির ফ্ল্যাগ ফেস্টুনে মুড়ে ফেলা হয়েছে শহর। ব্যবস্থা করা হয়েছে ৩ টন গাঁদা ফুল ও ৮ গোলাপোর পাঁপড়ি। গেরুয়া বেলুন ওড়ানোর ব্যবস্থাও করা হয়েছে। শেষবার ডায়মন্ড হারবারে জেপি নাড্ডার কনভয়ে হামলা হওয়ার কারণে এবার তার নিরাপত্তা ব্যবস্থাও জোরদার করা হযেছে।

জে পি নাড্ডার সফরসূচি

আজ সকাল এগারোটায় তিনি আসবেন অন্ডালে। সেখান থেকে চলে যাবে রাধাগোবিন্দ মন্দিরে। সেখানে পূজা দিয়ে ১১টা ৫০ মিনিটে তিনি যাবেন কাটোয়ার জগদানন্দপুর। সেখানে গ্রাম সভায় অংশগ্রহণ করে গ্রামের কৃষকদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে চাল সংগ্রহ করবেন।

এরপর এক কৃষকের বাড়িতে তিনি দুপুরের খাওয়া সারবেন। কাটোয়া হেলিপ্যাডে জে পি নাড্ডা যাবেন বর্ধমান। সেখান থেকে যাবেন বিজেপি জেলা অফিসে। বিজেপি জেলা অফিস থেকে তিনি যাবেন সর্বমঙ্গলা মন্দিরে, বেলা ৩টের সময়। সর্বমঙ্গলা মন্দির থেকে তিনি পৌঁছবেন বর্ধমান ক্লক টাওয়ারে। সেখানে তার রোড শো শুরু হবে বলে ঠিক রয়েছে। সেটা বেলা ৩টে ১৫ মিনিটে। তাঁর রোড শো শেষ হবে লর্ড কার্জন গেটের কাছে।

এরপর তিনি যাবেন সিনক্লেয়ার রিসর্টে।তারপর বিকেল সাড়ে ৫টায় সাংবাদিক বৈঠক করবেন। এবং তারপর সিনক্লেয়ার রিসর্টে কোর গ্রুপের সদস্যদের সঙ্গে বৈঠক করবেন। বৈঠক শেষে সিনক্লেয়ার রিসর্ট থেকে তিনি সোজা চলে যাবেন কাজী নজরুল ইসলাম বিমানবন্দরের দিকে। এবং সেখান থেকে দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা দেবেন।