১০ মিনিটে অনলাইনে e Pan Card বানানোর পদ্ধতি জেনে নিন

নতুন Pan Card করাতে চান? বর্তমানে আর সেই কারণে লম্বা লাইনে দাড়ানো, দুই পৃষ্ঠার অ্যাপ্লিকেশন ফর্ম ফিল আপ করার বা দিনের পর দিন অপেক্ষা করার কোনো প্রয়োজন নেই। বর্তমানে আয়কর বিভাগের চালু করা নতুন পরিষেবায় আধার কার্ড থাকলেই বাড়িতে বসে কোনো খরচা ছাড়াই ৫ মিনিটের মধ্যেই কোনো ব্যাক্তি Pan Card পেতে পারেন।

শুধু তাই নয়, মাত্র ৫০ টাকা খরচ করে তার প্রিন্ট করিয়ে নিতে পারেন। অবশ্য প্রিন্ট না করালেও এই Pan Card ফিজিকাল কপির মতনই কাজ করবে। জেনে নেওয়া যাক এই বিষয় বিস্তারিত

কারা ই-প্যান কার্ডের জন্য আবেদন করবেন?

যাদের আগে থেকে কোনো Pan Card নেই তারাই এই প্যান কার্ডের জন্য আবেদন করতে পারবেন। আবেদন করার জন্য আধার কার্ডের সাথে ব্যক্তির মোবাইল নম্বর যুক্ত থাকতে হবে। আধার কার্ডে আবেদনকারীর সম্পূর্ণ সঠিক জন্মতারিখ থাকতে হবে। আবেদনকারীকে প্রাপ্তবয়ষ্ক হতে হবে।

কীভাবে অনলাইনে আবেদন করবেন?

১. প্রথমে আবেদনকারীকে আয়কর বিভাগের ই-ফাইলিং পোর্টালে যেতে হবে। এই পোর্টালের বা দিকে “কুইক লিংকগুলি”-র মধ্যেই “ইনস্ট্যান্ট প্যান থ্রু আধার” অপশনে ক্লিক করতে হবে।

২. এর পরে যে নতুন পেজ খুলবে সেখানে “গেট নিউ প্যান” অপশনে ক্লিক করুন।

৩. এই নতুন পেজে আপনার আধার নম্বর দিন এবং ক্যাপচা কোড টাইপ করুন।এরপরে আধারের সাথে যুক্ত মোবাইল নম্বরে ওটিপি আসবে এবং তাকে যাচাই করে নিতে হবে।

৪. এর পরে আধার বিবরণ বৈধ (ভ্যালিডেট) করতে হবে। ইমেল আইডিটি ভ্যালিডেট করার অপশনে আপনার ইমেল আইডি ভ্যালিডেট করাতে হবে।

৫. আপনার নিবন্ধিত আধার নম্বরের ই-কেওয়াইসি তথ্য ইউআইডিএআই কর্তৃপক্ষের-এর সঙ্গে বিনিময় করার পরেই পাঁচ মিনিটের মধ্যে আপনার ই Pan Card বরাদ্দ হয়ে যাবে।

৬. এরপর “স্ট্যাটাস / ডাউনলোড প্যান” থেকে আধার নম্বরের মাধ্যমে পিডিএফ ফর্ম্যাটে প্যান ডাউনলোড করতে পারেন। আপনার ইমেল-আইডি তে আধার ডেটাবেসের সঙ্গে নিবন্ধিত থাকলে,   ইমেলে  পিডিএফ ফর্ম্যাটে Pan Cardটিও পাবেন।

প্যান কার্ডের স্টেটাস জানার পদ্ধতি

প্রথমে আয়কর দফতরের ই-ফাইলিং ওয়েবসাইটে গিয়ে “ইনস্ট্যান্ট প্যান থ্রু আধার” অপশনে ক্লিক করে ‘চেক স্টেটাস অব প্যান’-এ ক্লিক করতে হবে।এরপরে আপনার নিবন্ধিত আধার নম্বর দিলে আপনার আধারের সাথে যুক্ত মোবাইল নম্বরে ওটিপি আসবে।সেই ওটিপি দিলেই দেখা যাবে আপনার প্যান বরাদ্দ হয়েছে কিনা।