অর্পিতা, বৈশাখীই শুধু নন, তৃণমূল নেতা ঘনিষ্ঠ এই সুন্দরীদের কাছে নায়িকাদেরও ফিকে লাগবে

যেমন রূপ তেমন সাজসজ্জা, তৃণমূল নেতা ঘনিষ্ঠ বান্ধবীদের গ্ল্যামার ঝলসে দেয় চোখ

রাজ্যের প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ‘ঘনিষ্ঠ’ বান্ধবী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে (Arpita Mukherjee) নিয়ে এখন চর্চা তুঙ্গে। তার দু-দুটি ফ্ল্যাট থেকে মিলেছে প্রায় ৫০ কোটি টাকারও বেশি। এসএসসি নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের (Partha Chatterjee) গুপ্তধন খুঁজতে গিয়ে অর্পিতার হদিশ পায় ইডি। এতদিন যারা শোভন চট্টোপাধ্যায় আর বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায়ের ঘনিষ্ঠতা নিয়ে কটাক্ষ করতেন, তারা ছেড়ে কথা বলছেন না পার্থ-অর্পিতাকেও।

তবে শুধু অর্পিতা মুখোপাধ্যায় বা শুধু বৈশাখী বন্দোপাধ্যায়ই নন, তৃণমূল নেতা ঘনিষ্ঠ বান্ধবীদের তালিকাটা কিন্তু বেশ দীর্ঘ। এইসব সুন্দরীদের রূপসজ্জা থেকে ফ্যাশন সেন্স রীতিমতো তাক লাগিয়ে দেয়। আজ এই প্রতিবেদনে রইল তৃণমূল নেতা ঘনিষ্ঠ বান্ধবীদের (TMC Leader’s Girlfriends) হদিশ।

অর্পিতা মুখোপাধ্যায় (Arpita Mukhopadhyay) : এই মুহূর্তে রাজ্য রাজনীতি রীতিমতো তোলপাড় অর্পিতাকে নিয়ে। একসময় অভিনয় করলেও পরবর্তী দিনে নেল আর্ট সাঁলো খুলেছিলেন অর্পিতা। সাজসজ্জা, ফিটনেস নিয়ে দারুণ সচেতন তিনি। কখনও জিমের পোশাক, কখনও ওয়েস্টার্ন, কখনো আবার সাবেকি শাড়ি-গহনাতেও রীতিমতো ঘাম ছোটোানোর ক্ষমতা রাখেন তিনি। সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়েছে লাল শাড়ি, সোনালী গয়নার সাজে সেজে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের পাশে দাঁড়ানো অবস্থায় তার একটি ছবি।

মোনালিসা দাস (Monalisa Das) : এই সুন্দরীদের মধ্যে পার্থ ঘনিষ্ঠদের তালিকাটাই বৃহৎ। তালিকায় রয়েছেন কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের প্রধান মোনালিসা দাস। তিনি বলেন পার্থ চট্টোপাধ্যায় তার ‘অভিভাবক’। তার পছন্দ শান্তিনিকেতনী। সঙ্গে কপালে মানানসই টিপ। বাংলা সাহিত্য চর্চার ফাঁকে রোজের সারিতে কিভাবে বৈচিত্র্য আনা যায় সেই নিয়েও চর্চা করেন মোনালিসা তা তার ফ্যাশন দেখলেই বোঝা যায়। শাড়ি ছাড়াও ইক্কত, কটকি সুতির প্যান্ট এবং টপে ‘ক্যাম্পাস সম্মত’ভাবে দেখা যায় তাকে।

বৈশাখী বন্দোপাধ্যায় (Baishakhi Banerjee) : ইনিও একজন অধ্যাপিকা তবে তিনি পার্থ ঘনিষ্ঠ নন। কলকাতার প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায়ের বান্ধবী তথা প্রেমিকা বৈশাখীর রূপটান থেকে শাড়ি-গয়না, সবই নজর কাড়ার মত। সিল্ক বা জামদানি, জরির কাজ ভীষণ প্রিয় তার। নিজেকে হীরে এবং সোনার গয়নার সাজে, সাজিয়ে রাখতে পছন্দ করেন শোভনের বান্ধবী।

অনন্যা বন্দ্যোপাধ্যায় (Ananya Banerjee) : ইনি হলেন রাজ্যের মন্ত্রী অরূপ বিশ্বাসের কাছের মানুষ। একসময় সৌন্দর্য প্রতিযোগিতায় খেতাব জিতেছিলেন এই সুন্দরী। শাসক শিবিরের অন্যতম উল্লেখযোগ্য নেত্রী তিনি। ওয়েস্টার্ন থেকে শাড়ি সবেতেই অতুলনীয় ব্যক্তিত্ব ফুটে ওঠে তার। বাংলার সুতির শাড়ি, কখনও কখনও সাদা শাড়ি, লাল কিংবা অন্য পাড়ের শাড়ির সঙ্গে মানানসই হালকা গয়নায় ফুটে ওঠে তার সৌন্দর্য্য।

পিয়ালী মুখোপাধ্যায় (Piyali Mukherjee) : মদন ঘনিষ্ঠ বলে নামডাক ছড়িয়ে পড়েছিল পিয়ালীর। পেশায় ইনি ছিলেন একজন আইনজীবী। ২০১৩ সালে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। সুতির শাড়ির বদলে শিফন, পাথরের টিপ বা চুমকি বসানো ব্লাউজ ছিল তার পছন্দের সাজ।