কোন জেলায় প্যাসেঞ্জার ট্রেন কখন কখন চলবে, দেখে নিন ট্রেনের টাইমটেবিল

দীর্ঘ নয় মাস প্রতীক্ষার পর অবশেষে গড়াল রেলের চাকা। ১১ ই নভেম্বর লোকাল ট্রেন চালু হয়েছে শহরতলীতে। আজ অর্থাৎ ২রা ডিসেম্বর থেকে ৫৪টি নন সাবারবান লোকাল ট্রেন চালু হলো। এদের মধ্যে ৩০ টি ট্রেন হাওড়া ডিভিশনে, ২২ টি ট্রেন আসানসোল ডিভিশনে এবং ২ টি ট্রেন মালদা ডিভিশন চালু হলো।

এই সকল ট্রেনগুলির মধ্যে বর্ধমান থেকে রামপুরহাট শাখায় রয়েছে ৮টি ট্রেন। রামপুরহাট থেকে গুমানি শাখায় রয়েছে ৮টি ট্রেন। রামপুরহাট থেকে দুমকা জেসিডি শাখায় ২টি, কাটোয়া থেকে আজিমগঞ্জ শাখায় ৮টি, আজিমগঞ্জ থেকে রামপুরহাট শাখায় রয়েছে ৪টি ট্রেন।

বর্ধমান থেকে আসানসোল শাখায় রয়েছে ৮টি, অন্ডাল থেকে সাঁইথিয়া ৪টি, আসানসোল থেকে ধানবাদ ৪টি, আসানসোল থেকে জেসিডি ঝাঁঝা শাখায় ৪টি, অন্ডাল থেকে জেসিডি ২টি, মালদা থেকে বারহাওড়া ২টি ট্রেন আপাতত চলাচল করবে।

করোনা সংক্রান্ত সকল সর্তকতা বিধি মেনেই ট্রেন চলবে লুপলাইনে। ধীরে ধীরে এইভাবে লোকাল ট্রেন চালু করে ছন্দে ফিরতে চাইছে রেল। ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হচ্ছে রেল পরিষেবা,  মানুষের জীবনযাত্রা ও গণ পরিবহন ব্যবস্থা।

দীর্ঘদিন পর লোকাল ট্রেন চালু হওয়ায় যাত্রীরা স্বভাবতই খুব খুশি। যাত্রীদের দাবি বেশি সংখ্যায় লোকাল ট্রেন চালানো হোক। কভিদ বিধি মেনে ভিড় এড়াতে হলে ট্রেনে যাতায়াত এর জন্য আরও বেশিসংখ্যক ট্রেন চালু করার আর্জি জানাচ্ছেন অনেকেই।