কত টাকার মালিক সুপারস্টার চিরঞ্জিত চক্রবর্তী, প্রকাশ্যে এল সম্পত্তির পরিমাণ

নব্বইয়ের দশকে টলিউডে (Tollywood) রাজত্ব করতেন যে অভিনেতারা তাদের মধ্যে অন্যতম হলেন চিরঞ্জিত (Chiranjit Chatterjee)। চিরঞ্জিত তার ফিল্মি কেরিয়ারে বহু বাংলা ছবিতে অভিনয় করেছেন এবং তার অভিনয় বাঙ্গালীদের মনে গেঁথে রয়েছে। বর্তমানে তিনি রাজ্য শাসকদলের (TMC) তরফের বিধায়ক। ২০১১ এবং ২০১৬ সালে পর পর দুই বার বারাসত কেন্দ্র থেকে বিধায়ক হিসেবে জয়লাভ করেছেন এই সুদর্শন অভিনেতা।

একুশের বিধানসভা নির্বাচনী লড়াইয়েও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের (Mamata Banerjee) একজন সৈনিক হিসেবে লড়াইয়ের ময়দানে নেমেছেন চিরঞ্জিত (Chiranjit Chatterjee)। বারাসাত কেন্দ্র থেকেই তৃণমূলের তরফের প্রার্থী হয়ে ভোটে দাঁড়িয়েছেন তিনি। নিয়ম অনুযায়ী তৃণমূলের তরফের প্রার্থী হয়ে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার সঙ্গে সঙ্গে নিজ সম্পত্তির খতিয়ানও পেশ করতে হয়েছে তাকে।

উক্ত হলফনামা থেকে জানা গেল, ২০১৯-২০ অর্থ বর্ষে চিরঞ্জিতের উপার্জন ছিল ৩৪ লক্ষ ৬১ হাজার ৯৪০ টাকা। ওই একই বছরে তাঁর স্ত্রী রত্নাবলীর উপার্জন ছিল ৬ লক্ষ ৪৮ হাজার ৯০০ টাকা। চিরঞ্জিতের হাতে এই মুহূর্তে নগদ রয়েছে ৩৮ হাজার ৯৯ টাকা ৯০ পয়সা এবং তাঁর স্ত্রীর হাতে রয়েছে ১০ হাজার ৫১৩ টাকা ৩৭ পয়সা।

   

এছাড়াও চিরঞ্জিতের নামে রয়েছে বিভিন্ন ব্যাংকের একাউন্ট। যেখানে একেকটি একাউন্টে যথাক্রমে ৩ কোটি ৭১ লক্ষ ৫ হাজার ৪৬৯ টাকা, ২২ লক্ষ ৬৩ হাজার ৪৯৯ টাকা, ৩৭ হাজার ২০৭ টাকা ৬ পয়সা, ২ লক্ষ ১০ হাজার ৭৫২ টাকা ১৭ পয়সা, ২ লক্ষ ৩৩ হাজার ২৫ টাকা ৬৪ পয়সা এবং ৩ লক্ষ ৩১ হাজার ৮৩৭ টাকা করে রয়েছে।

অভিনেতার স্ত্রীর নামে যে একাউন্ট গুলি রয়েছে সেখানে যথাক্রমে ৬৮ হাজার ৫৯৯ টাকা ৮৬ পয়সা, ৩০ হাজার ৯৬ টাকা ৮ পয়সা, ২৮ হাজার ১০২ টাকা, ৫ লক্ষ টাকা, ১০ লক্ষ টাকা এবং ৩৮ লক্ষ টাকা করে রয়েছে।

এছাড়াও শেয়ারবাজারে ৮ লক্ষ ২০ হাজার টাকা, সাড়ে ৪ লক্ষ টাকা এবং ১৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ রয়েছে চিরঞ্জিতের। তাঁর স্ত্রীর বিনিয়োগ রয়েছে ৭ লক্ষ টাকা, দেড় লক্ষ টাকা এবং ২ লক্ষ টাকা। ডাকঘরে সঞ্চয় প্রকল্পে চিরঞ্জিতের বিনিয়োগ রয়েছে ২ লক্ষ টাকা এবং তাঁর স্ত্রীর বিনিয়োগ রয়েছে ১ লক্ষ ৩২ হাজার টাকা, ৮০ হাজার টাকা এবং সাড়ে ১২ লক্ষ টাকা।

আরও পড়ুন : সিনেমা সিরিয়াল করে পেট চলছে না তাই রাজনীতিতে, সাফ জানালেন চিরঞ্জিত

চিরঞ্জিতের স্থাবর সম্পত্তির মধ্যে রয়েছে একটি মাহিন্দ্রা স্করপিয়ো গাড়ি, ২০২৯ সালে যার বাজার মূল্য ১৩ লক্ষ ১৫ হাজার ১৯০ টাকা ছিল। এছাড়াও চিরঞ্জিতের দুটি সোনার নেকলেস এবং একটি আংটি বাবদ ২০০১ সালের বাজারমূল্য অনুযায়ী ১ লক্ষ ৫৩ হাজার ৩৪৫ টাকার অলংকার সম্পত্তি রয়েছে।

আরও পড়ুন : চিরঞ্জিত চক্রবর্তী অভিনীত সেরা ১০টি সিনেমা, যা তাকে অবিস্মরণীয় করে রাখবে

তাঁর স্ত্রীর কাছে রয়েছে একটি সোনার চেন, মঙ্গলসূত্র, তিন জোড়া কানের দুল, ৩টি বালা, ২ জোড়া চূড়, ১০ জোড়া চুড়ি এবং ১ জোড়া বাউটি-সহ কিছু গয়না। ১৯৮৯ সালের বাজারমূল্য অনুযায়ী এই অলংকারের দাম ছিল ১ লক্ষ ১৫ হাজার ৫০০ টাকা।

আরও পড়ুন : গাড়ি নেই, সম্পত্তি নেই, নেন না বেতন, কত টাকার মালিক মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়

টালিগঞ্জের ডক্টর মেঘনাদ সাহা সরণিতে ৫০ লক্ষ টাকা দামের একটি বিলাসবহুল ফ্ল্যাটে বসবাস করেন চিরঞ্জিত। ব্যাঙ্কে চিরঞ্জিতের নামে ৮ লক্ষ ৫৭ হাজার ৩৮৫ টাকার গাড়ির ঋণও রয়েছে।

আরও পড়ুন : কত টাকার মালিক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়, প্রকাশ্যে এলো সম্পত্তির পরিমাণ