‘দেশের মাটি’র টাইম স্লটে কোপ বসালো ‘খুকুমণি’! চ্যানেলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিল দর্শকরা

‘খুকুমণি’ কেড়ে নিল ‘দেশের মাটি’র টাইম স্লট! চ্যানেলের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিল দর্শকরা

Audince are worried for Desher Mati for Star Jalsha's New Serial Khukumoni Home Delivery

ফের ‘রাম্পিয়ান’দের ক্ষোভের মুখে পড়লো স্টার জলসা (Star Jalsha)। এমনিতে এতদিন ধারাবাহিকের গল্পে রাজা-মাম্পিকে (Raja-Mampi) কম গুরুত্ব দেওয়া, চ্যানেলের তরফ থেকে ‘দেশের মাটি’কে (Desher Mati) হেলাচ্ছেদ্দা করা, এমন অভিযোগ নিয়ে বহুবার নেট মাধ্যমে সমালোচনার ঝড় তুলেছেন তারা। তবে এবার কার্যত তাদের সহ্যের সব সীমা অতিক্রম করে গেল যখন তারা জানতে পারলেন ‘দেশের মাটি’র টাইম স্লটে পরিবর্তন আনা হয়েছে।

হঠাৎ কেন এই পরিবর্তন? ইদানিং স্টার জলসাতে নতুন ধারাবাহিকের রমরমা চলছে। শীঘ্রই জলসার পর্দাতে আসতে চলেছে ‘খুকুমণি হোম ডেলিভারি’ (Khukumoni Home Delivery)। ধারাবাহিকের প্রোমো এতদিন দেখেছেন দর্শক। আজ চ্যানেলের তরফ থেকে ধারাবাহিকের সম্প্রচারণের দিন এবং সময় জানানো হলো। আগামী ১লা নভেম্বর থেকে প্রতিদিন সন্ধ্যে সাড়ে ৬ টায় সম্প্রচারিত হবে নতুন ধারাবাহিকটি।

এই খবর জানতে পেরেই কার্যত ক্ষোভে ফুঁসছে শুরু করেছেন রাম্পিয়ানরা। কারণ এতদিন ওই সময়ে ‘দেশের মাটি’র সম্প্রচারণ হয়ে এসেছে। দর্শকদের একাংশ আবার ধারাবাহিক বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কাও করছেন। যদিও এখনই ধারাবাহিক বন্ধের কোনও পরিকল্পনা নেই চ্যানেলের। তবে তাতেও অবশ্য মন গলছে না ‘দেশের মাটি’র দর্শকদের। চ্যানেলের মুন্ডুপাত করতে শুরু করেছেন তারা কমেন্ট বক্সে।

নেটিজেনরা তাদের সব রোষ উগরে দিয়েছেন স্টার জলসার অফিশিয়াল সামাজিক পেজে গিয়ে। তাদের মন্তব্য, “কিছু বলার শক্তি, ক্ষমতা, ইচ্ছে সত্যিই কিছু অবশিষ্ট নেই আর। শুধু একটাই কথা বলবো…. এতোগুলো মানুষের কষ্ট, চোখের জল, হাহাকার আর দীর্ঘশ্বাসের ফল দিতে হবে। যেটা আপনাদের জন্য শুধুই Business ছিল.. সেটা আমাদের কাছে সবটা ছিল..সবটা….!!! ভালো করলেন না এটা। এতোটা Unfair treatment করে ভালো করলেন না। এর দাম আজ না হোক কাল দিতেই হবে। Carry On”।

কেউ কেউ আবার এই বলেও হুমকি দিচ্ছেন যে অক্টোবর মাসের পর থেকে তারা আর স্টার জলসা চ্যানেলের সাবস্ক্রিপশনই নেবেন না! তারা লিখছেন, “দেখবো দেখবো এই সিরিয়াল কত টিআরপি দেয়। দেশের মাটিকে সরিয়ে এটাকে আনলেন তো? আমাদের রাজা মাম্পিকে কেড়ে নিলেন তো। আমাদের চোখের জলের দাম দিতে হবে।”

 

View this post on Instagram

 

A post shared by Star Jalsha (@starjalsha)

রাম্পি ভক্তদের মধ্যে কেউ কেউ লিখলেন, “এতোগুলো মানুষের কষ্ট, চোখের জল, হাহাকার আর দীর্ঘশ্বাসের ফল দিতে হবে। যেটা আপনাদের জন্য শুধুই Business ছিল.. সেটা আমাদের কাছে সবটা ছিল…সবটা…!!! ভালো করলেন না এটা”। চ্যানেলের মুণ্ডপাত করে স্টার জলসাকে ‘থার্ড ক্লাস চ্যানেল’ও লিখলেন কেউ কেউ। কেউ আবার অভিশাপ দিলেন, ‘ফ্লপ হোক আপনাদের সব ধারাবাহিক’!