কীভাবে মিঠাই বন্ধ হওয়া আটকানো যাবে, মিঠাইকে বাঁচাতে করুন এই ছোট্ট কাজ

মিঠাই বন্ধ হওয়া আটকানো এখন আপনার হাতে, মিঠাইয়ের পাশে থাকতে করুন এই ছোট্ট কাজ

NEW ACTRESS COMING TO MITHAI SERIAL

ক্রমশ টিআরপি তালিকাতে কোণঠাসা হয়ে পড়ছে জি বাংলার (Zee Bangla) এককালীন টপার গার্ল মিঠাই (Mithai)। এখন সেরা ৫ এর মধ্যেও নিজের জায়গা ধরে রাখতে পারে না মিঠাই। গত সপ্তাহের টিআরপি তালিকাতেও ছিটকে যেতে যেতে কোনওমতে সেরা দশের মধ্যে টিকে ছিল মিঠাই রানী। এমনটা চলতে থাকলে আর কাজটা সাধারণ ধারাবাহিকের মত দর্শকদের প্রিয় এই ধারাবাহিকও চ্যানেলের কোপে পড়ে যাবে।

এমনিতেই ইতিমধ্যে চ্যানেলের খাঁড়া নেমে এসেছে মিঠাইয়ের মাথাতে। টিআরপি তালিকায় নিচে নামতেই মিঠাইকে প্রাইম টাইম থেকে সরিয়ে দেওয়া হচ্ছে। আপাতত জি বাংলাতে সন্ধে ৬.০০টার স্লট মিঠাইয়ের ভাগ্যে পড়েছে। আগামী মাস থেকে পরিবর্তিত স্লটেই দেখা যাবে মিঠাই। শুনে ভক্তদের মন খুবই খারাপ।

কিন্তু এখন কেবল মিঠাইয়ের ভক্তরাই মিঠাইয়ের পাশে থাকতে পারেন। এই দুর্বল মুহূর্তে ভক্তরা মিঠাইয়ের পাশে না থাকলে ধারাবাহিক খুব তাড়াতাড়িই বন্ধ হয়ে যাবে। ইন্ডাস্ট্রি সূত্রে খবর, আর বড়জোর আড়াই মাস গল্প এগিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে। তারপরেই নাকি মিঠাইতে বিদায়ের ঘন্টা বাজবে। এখন প্রকৃত মিঠাই ভক্ত হিসেবে আপনিই মিঠাইয়ের বন্ধ হওয়া আটকাতে পারেন। কীভাবে? জেনে নিন।

যেকোনও ধারাবাহিকের ক্ষেত্রে টিআরপি হল শেষ কথা। টিআরপিতে না চললে বা স্লট লিডার হতে না পারলে সেই ধারাবাহিককে সাধারণত সরিয়ে দেওয়া হয় আর নয়তো বন্ধ করে দেওয়া হয়। জি বাংলাতে টানা ৫৬ বার শুধু স্লট লিডার নয়, মিঠাই বেঙ্গল টপার হয়েছিল সেটা কেবলই ভাল টিআরপি জন্য। মিঠাইয়ের টিআরপি বাড়ানোতে দর্শকদের পাশাপাশি চ্যানেলেরও একটা বড় ভূমিকা আছে।

প্রথমত এই মুহূর্তে চ্যানেল থেকে নতুন প্রোমো দিতে হবে সিরিয়ালের। দ্বিতীয়ত গল্পের আকর্ষণ বাড়াতে হবে। গল্প যদি তার পুরোনো আকর্ষণ ফিরে পায় তাহলেই আবার মিঠাইয়ের টিআরপি বাড়া সম্ভব। তৃতীয়ত, খুব শীঘ্রই এই ধারাবাহিকের একটা আউটডোর শুটিং হওয়া প্রয়োজন। এর আগে আউটডোর শুটিংয়ে ধারাবাহিকের টিআরপি হু হু করে বেড়েছিল।

আর চতুর্থ যেটা সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ সেটা হল দর্শক। মিঠাই তার দর্শক হারিয়ে ফেলেছে। এর পেছনে একটা বড় কারণ হলো অনেক দর্শক এখন টিভি ছেড়ে ফেসবুক পেজ, টেলিগ্রাম চ্যানেল বা অন্যান্য প্ল্যাটফর্ম থেকে মিঠাই দেখছেন। যার সরাসরি প্রভাব পড়ছে টিআরপিতে। তাই দর্শকরা যদি সরাসরি টিভি থেকেই মিঠাই দেখেন তাহলে টিআরপি আবার বাড়তে বাধ্য। তাই প্রকৃত মিঠাইপ্রেমী হিসেবে প্রত্যেকেরই সরাসরি টিভি খুলে মিঠাই দেখা উচিত।