ঐন্দ্রিলার প্রশংসায় পঞ্চমুখ সৌরভ, ‘দাদাগিরি’র মঞ্চে ঐন্দ্রিলার নাচ দেখে চোখে জল নেটিজেনদের

'এত আনন্দ আয়োজন, সবই বৃথা তোমায় ছাড়া' – 'দাদাগিরি'র মঞ্চে সৌরভের প্রশংসা কুড়িয়েছিলেন ঐন্দ্রিলা

জীবনযুদ্ধে বারবার মৃত্যুকে পরাজিত করে হাসিমুখে ঘরে ফিরেছেন ঐন্দ্রিলা শর্মা (Aindrila Sharma)। তার এই লড়াই অনুপ্রেরণা দেয় বহু মানুষকে। তবে ঐন্দ্রিলার লড়াইটা একা শুধু ক্যান্সারের বিরুদ্ধে নয়, যেন প্রতি মুহূর্তে তাকে নিয়তির সঙ্গেও লড়াই করতে হচ্ছে। দু-দুবার ক্যান্সার হারিয়ে ফেরার পরেও আচমকাই ব্রেন স্ট্রোকে আক্রান্ত হয়ে আবারও হাসপাতালে ভর্তি হতে হল অভিনেত্রীকে। তার জন্য মন খারাপ ইন্ডাস্ট্রির ভেতর-বাইরের প্রায় প্রত্যেকটি মানুষের।

ঐন্দ্রিলাকে নিয়ে সম্প্রতিসোশ্যাল মিডিয়াতে একটি পুরনো ভিডিও ভাইরাল হয়েছে। কিছু মাস আগে সৌরভ গাঙ্গুলীর (Sourav Ganguly) দাদাগিরি (Dadagiri)অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছিলেন ঐন্দ্রিলা। সেই সময় তিনি দ্বিতীয়বার ক্যান্সার সারিয়ে উঠেছিলেন সদ্য। সেই অনুষ্ঠানে তিনি তার লড়াইয়ের গল্প বলেন। সেই সঙ্গে ‘খাদ’ ছবিতে অরিজিৎ সিংয়ের গাওয়া ‘দেখো আলোয় আলো আকাশ’ গানের সঙ্গে তিনি নেচেওছিলেন।

‘এত আনন্দ আয়োজন সব বৃথা আমায় ছাড়া’, ঐন্দ্রিলার সেদিনের সেই নাচ দেখে চোখে জল চলে এসেছিল প্রতিযোগীদের আসনে থাকা লোপামুদ্রা মিত্রের। ঐন্দ্রিলাকে দেখে এবং তার কথা শুনে আবেগ ধরে রাখতে পারেননি সৌরভ গাঙ্গুলীও। তিনি তার কাঁধে হাত রেখে বলে ওঠেন, ‘এত আনন্দ আয়োজন সবই বৃথা তোমায় ছাড়া।’

সেদিনের সেই ভিডিওটাই আজকে যেন আরও বেশি করে প্রাসঙ্গিক হয়ে দাঁড়াচ্ছে। আজ ঐন্দ্রিলার ফেরার অপেক্ষায় দিন গুনছেন বাংলার প্রতিটি মানুষ। তার পরিবার, সতীর্থ থেকে অনুগামী, সকলেই এখন একটা সুখবর শোনার অপেক্ষায় রয়েছেন। ঐন্দ্রিলার হাসি মাখা মুখটাই তারা আবার দেখতে চান। তাকে আর হাসপাতালে বেডে শুয়ে থাকতে দেখতে চান না কেউই।

Sabyasachi Chowdhury shared health Update of Aindrila Sharma

ঐন্দ্রিলাকে সেদিন দাদাগিরির মঞ্চে কুর্নিশ জানিয়েছিলেন সৌরভ। সেইসঙ্গে তার প্রেমিক সব্যসাচীর ধৈর্য এবং ভালোবাসা দেখেও তিনি মুগ্ধ হয়ে যান। সৌরভের সঙ্গে ‘জেহনসিব’ গানে বল ডান্স করে নিজের মনের ইচ্ছা পূরণ করেন অভিনেত্রী। সৌরভ তার জন্য প্রার্থনা করেছিলেন, ‘‘এখানে যারা আছে সবার আয়ু যেন তোমার লাগে।’’ সৌরভের এই কথায় ঐন্দ্রিলা কেঁদে ফেলেছিলেন সেদিন।

ঐন্দ্রিলার স্বাস্থ্য সম্পর্কিত নানা খবর সোশ্যাল মিডিয়াতে রটছে। শোনা যাচ্ছে তার অবস্থা নাকি আশঙ্কাজনক। আনন্দবাজার সূত্রে খবর, ঐন্দ্রিলার সংকট নাকি এখনও কাটেনি বলেই জানিয়েছেন চিকিৎসকরা। তবে ঐন্দ্রিলার কাছের মানুষ সব্যসাচী কথা দিয়েছেন তিনি যেমন ঐন্দ্রিলাকে হাসপাতালে নিয়ে এসেছেন, তেমন ফিরিয়েও নিয়ে যাবেন।