সুশান্ত-কাণ্ডে মুখ খুললেন আদিত্য চোপড়া, পুলিশকে বললেন এই কথা

১৪ জুন সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পর থেকে এখনও চলছে মুম্বাই পুলিশের তদন্ত। ইতিমধ্যেই ৩৪ জনকে জেরা করেছে মুম্বাই পুলিশ। এদের মধ্যে রয়েছে মধ্যে বাড়ির লোক, বন্ধুবান্ধব,পরিচারিকা এছাড়াও নামী দামী তারকা ও পরিচালক।

ইয়াশ রাজ ফিল্মসের কর্ণধার আদিত্য চোপড়ার বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছিল অন্যায় ভাবে সুশান্তকে বেশ কয়েকটি ছবি থেকে বাদ দিয়ে দিয়েছিল ইয়াশ রাজ ফিল্মস। শুধু তাই নয় অন্য প্রযোজনা সংস্থার সাথে তাকে কাজ করতে দেওয়া হয়নি বলেও অভিযোগ ওঠে ইয়াশ রাজ ফিল্মসের বিরুদ্ধে। এবার সেই সংস্থার কর্ণধার আদিত্য চোপড়াকে জেরা করলো মুম্বাই পুলিশ।

আদিত্য চোপড়ার কথা অনুযায়ী, ইয়াশ রাজ ফিল্মস কোনোদিনই সুশান্তকে অন্য পরিচালকদের সাথে কাজ করতে বাধা দেয়নি। এক্ষেত্রে পরিচালক সঞ্জয় লীলা বনসালির বয়ানের কথা উল্লেখ করা যায়, যেখানে তিনি পুলিশকে জানান ইয়াশ রাজ ফিল্মসের সাথে চুক্তিবদ্ধ থাকার কারণেই তার তিনটি ছবি ( ‘রামলীলা’, ‘বাজিরাও মস্তানী’, ‘পদ্মাবত’) ফিরিয়ে দিয়েছিলেন সুশান্ত সিং রাজপুত। এই বিষয় আদিত্য চোপড়ার বক্তব্য বনশালী এই বিষয় কোনোকিছুই ইয়াশ রাজ ফিল্মসের ট্যালেন্ট ম্যানেজমেন্ট টিমকে জানাননি।

প্রসঙ্গত ইয়াশ রাজ ফিল্মসের সাথে তিনটি ছবি করার কথা ছিল সুশান্ত সিং রাজপুতের যার মধ্যে “শুদ্ধ দেশী রোম্যান্স’ এবং ‘ডিটেকটিভ ব্যোমকেশ বক্সী’ মুক্তি পেলেও আটকে যায় শেখর কাপুর পরিচালিত ছবি “পানি’। শেখর কাপুর জানান, এই কারণেই বেশ মনমরা হয়ে যায় সুশান্ত।

আদিত্য কাপুরকে এই বিষয় জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বলেন  সেই ছবি না হওয়ার কারণ পরিচালক শেখর কাপুরের সাথে সুশান্তের বাজেট সংক্রান্ত ঝামেলা। শুধু তাই নয় ছবির শুটিং এর আগে প্রি প্রোডাকশনের যাবতীয় কাজের জন্য ৭ কোটি টাকা খরচ করে ইয়াশ রাজ ফিল্মস এবং সেই সময় নিয়মিত ওয়ার্কশপে আসতেন সুশান্ত।

আরও পড়ুন :- এই ৭টি ছবির অফার সুশান্তের কাছে এলেও চলে যায় অন্য নায়কের কাছে

চুক্তির বিষয় তাকে প্রশ্ন করা হলে আদিত্য চোপড়া পাল্টা প্রশ্ন করেন, যদি চুক্তির সময় সুশান্তকে অন্য পরিচালকদের সাথে কাজ করতে বাধা দেওয়া হয়ে থাকে তাহলে সুশান্ত “ধোনি’ সিনেমাটি কিভাবে করলেন?

আরও পড়ুন :- সুশান্তের মৃত্যু আত্মহত্যা নয়, “পরিকল্পিত খুন’ বলে দিচ্ছে এই ১০টি প্রমাণ

তবে অভিযোগ ততদিনে বিগ বাজেট ছবিগুলি সুশান্তের হাতছাড়া হয়ে যায়। জানা যায় ইয়াশ রাজ ফিল্মসের সাথে চুক্তির কারণেই ২০১৬ সালে শেষ মুহূর্তে আদিত্য রায় কাপুর অভিনীত ছবি “ফিতুর’ থেকে বাদ পড়তে হয় সুশান্তকে। এই বিষয় আদিত্যের দাবি, ব্যাক্তিগত করণের জন্যই ছবিটি করেননি সুশান্ত, এর সাথে চুক্তির কোনো যোগ নেই।