মিথ্যে বলে টাকা হাতিয়ে জেলে যেতে বসেছেন কপিল শর্মা, দায়ের হল মামলা

মিথ্যে বলে টাকা খেয়েছেন, কপিল শর্মার বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ বিদেশী সংস্থার

মজার মজার কথা বলে এতদিন দেশের কোটি কোটি মানুষের মুখে হাসি ফুটিয়েছেন। দৈনন্দিন চাপে জর্জরিত মানুষের মনের ভার কমেডি করে লাঘব করেছেন কপিল শর্মা (Kapil Sharma)। এবার তার বিরুদ্ধেই উঠল গুরুতর অভিযোগ! মিথ্যে বলে টাকা হাতানোর অভিযোগ উঠেছে কমেডি কিংয়ের বিরুদ্ধে। যার পরিপ্রেক্ষিতে কপিল শর্মার বিরুদ্ধে আবার মামলাও দায়ের করেছে একটি বিদেশি সংস্থা।

ঘটনাটি আসলে ২০১৫ সালের। ওই বছর নর্থ আমেরিকা ট্যুরের সময় কপিল শর্মাকে ৬টি শোয়ের জন্য পারিশ্রমিক দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু তিনি কেবলমাত্র পাঁচটি শো’তে পারফর্ম করেছিলেন। মার্কিন প্রদেশের নিউ জার্সিতে অবস্থিত ওই ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের মালিক অমিত জেটলি।

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়া পেজে ওই প্রতিষ্ঠান কপিল শর্মার বিরুদ্ধে চুক্তিভঙ্গের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে মামলা দায়ের করার কথা জানিয়েছে। সেখানে উল্লেখ করা হয়েছে কপিল নাকি তাদের বলেছিলেন ক্ষতিপূরণের টাকা তিনি দিয়ে দেবেন। তবে তিনি সেই কথা রাখেননি।

সংস্থার তরফ থেকে একাধিকবার কপিলের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও কমেডিয়ানের তরফ থেকে উত্তর মেলেনি। তাই শেষমেষ তার বিরুদ্ধে চরম পদক্ষেপ নেওয়া হল। উল্লেখ্য বর্তমানে নর্থ আমেরিকা ট্যুরেই রয়েছেন কপিল শর্মা। তার সঙ্গে রয়েছেন সুমনা চক্রবর্তী, কিকু সারদা, কৃষ্ণা অভিষেক, রাজীব ঠাকুর চন্দন প্রভাকররাও।

The Kapil Sharma Show

উল্লেখ্য, এর আগেও কপিলের বিরুদ্ধে বহুবার বহু বিতর্ক উঠেছে। ‘দ্য কাশ্মীর ফাইলস’ ছবি মুক্তির আগে এই ছবির টিমকে প্রমোশনের জন্য নিজের শোতে ডেকে আনেননি তিনি। যে কারণে গোটা দেশ তার বিরুদ্ধে ক্ষোভে ফেটে পড়েছিল। এমনকি কপিল শর্মা শো বয়কট করার ডাকও দিয়েছিলেন নেটিজেনরা। মুখ খুলতে বাধ্য হয়েছিলেন কপিল। নতুন এই বিতর্ক প্রসঙ্গে অবশ্য এখনও মুখ খোলেননি কমেডি কিং।