সৌরভ গাঙ্গুলির নেওয়া ৩টি সিদ্ধান্ত যেটা বদলে দিয়েছে ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাস

ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাসে শুধু নয় বরং বিশ্ব ক্রিকেটার ইতিহাসে অন্যতম সেরা অধিনায়ক ছিলেন বাংলার ছেলে সৌরভ গাঙ্গুলি। বর্তমানে তিনিই বিসিসিআই এর প্রেসিডেন্টের পদে বসে আছেন এবং নিজের দায়িত্ব পালন করছেন। তার অধিনায়কত্ব ভারতীয় ক্রিকেটের ভাগ্য নির্ধারণ করে, বর্তমান ভারতীয় ক্রিকেট দল যেভাবে পুরো বিশ্বের অন্যতম সেরা দল হিসেবে মাথা উচু করে দাড়িয়ে আছে তার পেছনে সৌরভ গাঙ্গুলির কৃতিত্ব ছিল অপরিসীম। তার অধিনায়কত্বের সময় তিনি এমন কিছু সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন যা ভবিষ্যতে ভারতীয় ক্রিকেটের ইতিহাস বদলে দিয়েছে। আসুন এমনই তিনটি সিদ্ধান্তের বিষয় জেনে নেওয়া যাক।

১. রাহুল দ্রাবিড় কে দিয়ে কিপিং করানোর সিদ্ধান্ত

বর্তমান সময়ে টিম ইন্ডিয়ার বেশ কিছু জন অলরাউন্ডার আছেন, কিন্তু একটা সময় ছিল যখন ভারতীয় দলে অলরাউন্ডার এর সংখ্যা তেমন ছিল না। তেমনই একটা সময় উইকেট কিপিং এর গুরু দায়িত্ব রাহুল দ্রাবিড় এর কাধে দাওয়ার সাহসী সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন সৌরভ গাঙ্গুলি।

এই সিদ্ধান্তটি প্লেয়িং ইলেভেনের অতিরিক্ত ব্যাটসম্যানের পথ তৈরি করেছিল। শচীন তেন্ডুলকর, বীরেন্দ্র শেবাগ, যুবরাজ সিং এবং নিজে একজন নমনীয় বোলার হওয়ার কারণে এটি আক্রমণাত্মক বোলিংয়ের বিকল্প তৈরি করার ক্ষেত্রে সুবিধাজনক হয়।

এই পদক্ষেপটি দুর্দান্ত ফলাফল পেয়েছিল কারন রাহুল দ্রাবিড় উইকেটের পেছনে বেশ ভাল ফল করেছিলেন এবং ভারত আইসিসি ক্রিকেট বিশ্বকাপ ২০০৩ এর রানার্সআপ ছিল।

২. বীরেন্দ্র শেহবাগ কে দিয়ে টেস্টে ওপেনিং করানো

বীরেন্দ্র শেহবাগ অনেক আগেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নিলেও এখনও তিনি বাইশ গজের বিস্ফোরক ওপেনার হিসাবে পরিচিত। তবে অনেকেই জানেন না যে শেহবাগ মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান হিসাবে যখন আত্মপ্রকাশ করেছিলেন তখন প্রথমবারেই তিনি সেঞ্চুরি করেছিলেন।

গাঙ্গুলি তার মধ্যে সম্ভাব্যতা উপলব্ধি করে তাকে ব্যাটিং অর্ডারে প্রথমের দিকে নিয়ে যান। ফলাফল প্রত্যক্ষদর্শী ছিল। শেবাগ দ্রুত স্টারডমে উঠেছিলেন এবং মেন ইন ব্লুয়ের জন্য প্রচুর রান সংগ্রহ করেছিলেন। টেস্ট ক্রিকেটে নিজের কৃতিত্বের স্বীকৃতি স্বরূপ এখনও তাঁর বেশ কয়েকটি ট্রিপল সেঞ্চুরি রয়েছে।

আরও পড়ুন :- ৩ ভারতীয় ক্রিকেটার যাদের নামে গিনিস রেকর্ড আছে

টেস্ট ক্রিকেটে শেহবাগের আক্রমণাত্মক ব্যাটিং স্টাইল টেস্ট ক্রিকেটে ব্যাটিং স্টাইল বদলে দিয়েছিল এবং এর কৃতিত্বটা সৌরভ গাঙ্গুলিরই।

৩. সচিন তেন্ডুলকর কে দিয়ে বোলিং কোরানো

ভারতের টেস্ট ক্রিকেট নিয়ে আলোচনা হলে ২০০১ সালে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ইডেন গার্ডেনে কলকাতা টেস্টের কথা কেউ কখনো ভুলতে পারবে না। এই ম্যাচটি ভিভিএস লক্ষ্মণ এবং রাহুল দ্রাবিড়ের দিনব্যাপী ব্যাটিংয়ের জন্য বিখ্যাত হলেও এই ম্যাচে এমন একটি সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছিল যেটা চমকে দিয়েছিল ক্রিকেটপ্রেমী থেকে ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের।

অস্ট্রেলিয়া শেষ দিনে ম্যাচটি ড্র হওয়ার দিকে নিয়ে যাচ্ছিল সেই সময় সৌরভ গাঙ্গুলি শচীন টেন্ডুলকারের হাতে বলত তুলে দেন।কারন তিনি দেখেন অস্ট্রেলিয়ানরা ভেঙ্কটপ্যাথি রাজুর বিপক্ষে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করছিল।

আরও পড়ুন :- ৪ ক্রিকেটার যারা ভেঙে দিতে পারেন শচীনের সেঞ্চুরির রেকর্ড

শচীন অ্যাডাম গিলক্রিস্টের গুরুত্বপূর্ণ উইকেট এবং তারপরে ম্যাথু হেডেনের গুরুত্বপূর্ণ উইকেটটি তুলে নিয়েছিলেন। তারপরে শেন ওয়ার্নকে ফেরত পাঠিয়ে তিনি আরও একটি উইকেট নিয়েছিলেন।

সৌরভ গাঙ্গুলীর এই সিদ্ধান্তটি চরম প্রশংসা পেয়েছিল এবং ভারত আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের ইতিহাসের অন্যতম সেরা দলকে হারিয়ে এই ঐতিহাসিক টেস্ট ম্যাচটি জিতে বিশ্বকে চমকে দিয়ে